ঢাকা : ১ মে, ২০১৭, সোমবার, ৬:২৯ পূর্বাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

ঈদে নিন চুলের যত্ন

ঈদ প্রায় দোরগোড়ায় চলে এসেছে। আর তাই ঈদ নিয়ে আমাদের কত আয়োজন। ঈদে এটা লেগবে, ওটা লাগবে। ঈদের পোশাকটা সবার থেকে ভিন্ন হতে হবে।cul

নিজেকে স্পেশাল দেখাতে হবে। মেকআপটা ভালো হতে হবে। চুলের কোন স্টাইলটা থাকবে তাই নিয়ে আমাদের মাথা ব্যাথার শেষ নেই।চুলের ব্যাপারটা সব থেকে আলাদা। হঠাৎ করে এক বা দুই দিনের যত্নে চুলকে বিশেষ রূপ দেওয়া সম্ভব নয়। তার জন্য একটু আগে থেকে প্রস্তুতি দরকার।

তবে এত প্রস্তুতির মাঝেও সঠিক যত্নের অভাবে ক্ষতির সম্মুখীন হতে পারে আপনার চুল। তাই চুলের যত্নে রইলো কিছু ঘরোয়া টিপস। যা করে তুলবে আপনার চুলকে সুস্থ, সুন্দর আর স্বাস্থ্যবান। তাহলে চলুন জেনে নেওয়া যাক সেগুলো-

ডিম : একটি ডিমের সাদা অংশ নিয়ে ভালো ভাবে ফেটিয়ে নিতে হবে। তারপর পরিষ্কার চুলে সরাসরি হাত অথবা ব্রাশের সাহায্যে ওপর থেকে নিচ পর্যন্ত লাগাতে হবে। তারপর হালকা ঝুটি করে নিন বা শাওয়ার ক্যাপ পরে নিন। ২০-৩০ মিনিট রেখে নরমাল পানিতে চুল ধুয়ে নিন এবং শ্যাম্পু করুন। যেদিন ডিম দেবেন সেদিন আর আলাদা করে কন্ডিশনার দেবার প্রয়োজন হবেনা। প্রতি ৭ দিনে ১ বার করুন দেখবেন চুল ঘন হওয়ার সাথে সাথে আসবে বাউন্স।

তেল : রাতে ঘুমানোর আগে এই তেলের মিশ্রণ হালকা গরম করে নিয়ে মাথার তালুতে ভালোভাবে ম্যাসাজ করে নিতে হবে। চুলের প্রতিটি গোড়ায় যেন তেল পৌঁছায় সেজন্য একটু সময় নিয়ে আস্তে আস্তে পুরো চুল আর তালুতে তেল দিয়ে নিতে হবে। সারা রাত রাখা সম্ভব না হলে গোসলের ১ ঘণ্টা আগে চুলে তেল দিয়ে তারপর শ্যাম্পু করে নিতে হবে। সপ্তাহে ২ বার যদি এটা করা যায়, ১ মাসের মধ্যেই চুল পাতলা ভাব কমে আসবে, চুল পড়া বন্ধ করে নতুন চুল গজাতে সাহায্য করবে।

অ্যালোভেরা : অ্যালোভেরার জেল বের করে নিন, ৪ চামচ মধুর সাথে মিক্স করে সরাসরি চুলে এবং মাথার তালুতে লাগিয়ে ফেলুন। চাইলে এর সাথে কোনো ট্রিটমেন্ট ক্রিমও যোগ করতে পারেন। চুল ঘন করার সাথে সাথে এটি আপনার চুলের আগা ফেটে যাওয়া রোধ করবে।

মধু : ব্যবহারের ক্ষেত্রে মধু খুবই আঠালো, সে জন্য খুব অল্প পরিমাণে (৪-৫ চামচ এর বেশি না) মধু নিয়ে তা মাথার তালুতে ব্যবহার করুন। তারপর চুল আটকে ১৫ মিনিট রেখে দিন। খেয়াল রাখুন যেন প্রতিটি চুলের গোড়ায় একটু হলেও মধু পৌঁছায়। সবশেষে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

পেঁয়াজ : আপনার হেয়ার ফলিকল এর কোনও অংশ ক্ষতিগ্রস্ত থাকলে নিয়মিত ব্যবহারে তা সারিয়ে তোলে। যাদের চুল পাতলা তারা সপ্তাহে ২-৩ দিন ১০-১২ মিনিটের জন্য মাথার তালুতে পেঁয়াজ ঘষে ব্যবহার করলে কিছুদিনের মধ্যেই ফল পাবেন।

মেহেদি : মেহেদি লাগিয়ে সাথে সাথে চুল ধুয়ে ফেলবেন না। কমপক্ষে ২ ঘন্টা অপেক্ষা করুন। এতে মেহেদির রং চুলে ভালভাবে বসবে। তাই হাতে সময় নিয়ে চুলে মেহেদি লাগান। অনেকেই বলে মেহেদি চুল রুক্ষ করে থাকে। হ্যাঁ আপনার মাথার তালু রুক্ষ হলে মেহেদি চুল রুক্ষ করে । তাই মেহেদির প্যাকের সাথে তেল, টকদই ব্যবহার করুন। কিংবা মেহেদি লাগিয়ে শ্যাম্পু করে মাথায় তেল লাগান।পানি ও পরে শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে অন্তত ১ বার এটি ব্যবহার করার চেষ্টাকরুন। ভালো ফল পাবেন।

টক দই : চুলে সিল্কি ভাব বজায় রাখার জন্য ঈদের আগে অন্তত দুই বার টক দই ব্যবহার করুন। টক দই, লেবুর রস এবং ডিমের সাদা অংশ ভালো করে মিশিয়ে চুলে লাগান। ১৫ মিনিট রেখে শ্যাম্পু করে চুল ধুয়ে ফেলুন।

কারি পাতা : কারি পাতা চুলের জন্য খুবই উপকারী। কারি পাতা বেটে চুলে মাখিয়ে ১৫ থেকে ২০ মিনিট রেখে চুল ভালো ভাবে ধুয়ে ফেলতে হবে। এটি চুলের ক্ষয় রোধ করে।

ঈদের আগে একবার পার্লারে যেয়ে আপনার চুলের চাহিদা অনুযায়ী একটি হেয়ার মাস্ক নিতে পারেন। বিশেষ করে ন্যাচারাল নারিশিং মাস্কটা ভালো হবে। এতে চুলের পুষ্টিগুণ বজায় থাকবে।

তাছাড়া ঈদের আগে আগে চেহারার সঙ্গে মানানসই একটি হেয়ার কাটিংও দিয়ে নিতে পারেন। ঈদের সকালে অবশ্য আপনি বাসায় বসে হেয়ার স্ট্রেইট বা ফ্লো ড্রাই করতে পারেন। তাহলে ঈদের দিন হয়ে উঠবেন একেবারে স্পেশাল।

এ সম্পর্কিত আরও

Check Also

রাশিফলের পুর্বাভাসে যেমন কাটতে পারে আপনার দিনটি

[রাশিফল মানা ইসলামে হারাম] রাসুল (সাঃ) বলেছেনঃ ‘যে ব্যক্তি কোনও জ্যোতিষীর কাছে গেলো ও তাকে …

Loading...