পার্লারের কর্মীকে যৌন নিপীড়ন, পুলিশ কর্মকর্তার দণ্ড

প্রকাশিতঃ জুলাই ১৪, ২০১৬ at ৮:৫৪ অপরাহ্ণ

মালয়েশিয়ায় একটি ম্যাসেজ পার্লারের দুই নারীকর্মীকে যৌন নিপীড়নের দায়ে দেশটির এক পুলিশ কর্মকর্তাকে অর্থদণ্ড দিয়েছে আদালত।

বৃহস্পতিবার দেশটির দায়রা জজ আদালতের বিচারক দাতিন কুনাসান্ডারি মারিমুথু এ রায় দেন।

এতে চেরাসের পুলিশ সদর দফতরে কর্মরত এনজি কুম অয়াহ (৪৯) নামের এই পুলিশ কর্মকর্তার ৯ হাজার রিঙ্গিত জরিমানা করা হয়। অনাদায়ে তাকে ৬ মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দেয়া হয়েছে।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, এনজি কুম অয়াহ চেরাসের তামান কনেটের জালান মিনারা গেডিংয়ে অবস্থিত ‘ল্যাভেন্ডার ম্যাসেজ সেন্টারে’  শরীর ম্যাসেজ করতে যান। এ সময় তিনি ম্যাসেজ পার্লারের দুই নারীকর্মীকে যৌন কাজে প্রলোভন দেখান। তবে ওই নারীকর্মীরা তার প্রলোভনে সাড়া না দিয়ে তার বিরুদ্ধে মামলা করেন। এর প্রেক্ষিতেই আদালত এ রায় দেন।

বিচারক দাতিন কুনাসান্ডারি মারিমুথু বলেন, তাৎক্ষণিক ম্যাসেজ পার্লারের নারীকর্মীরা রাজী না হওয়ায় তাদের কনডম ব্যবহারেরও নির্দেশ দেন ওই পুলিশ কর্মকর্তা।

ম্যাসেজ পার্লারের এক নার্রীকর্মী জানান, অনেকদিন ধরে অসুস্থ্য থাকার কারণে তিনি ফুলটাইম চাকরি করতে পারছেন না। তাই এখানে পার্টটাইম কাজ করে মায়ের চিকিৎসা খরচ যোগান তিনি। কিন্তু এখানেও এধরনের হয়রানির শিকার হতে হচ্ছে।

তিনি বলেন, আমাদের মতো অন্য কারো সঙ্গে যেন এ ধরনের যৌন নিপীড়ন না হয়, আমরা সেই আশাই করবো। আমরা চুরি করছি না, পার্লারে কাজ করি। তাই বলে সবাইকে এক নজরে না দেখার কথাও বলেন তিনি ।

এ সম্পর্কিত আরও