Mountain View

অবৈধভাবে চলছিল হলি আর্টিজান, মালিকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

প্রকাশিতঃ জুলাই ১৭, ২০১৬ at ৭:৪৫ অপরাহ্ণ

ভয়াবহ জঙ্গি হামলার শিকার গুলশানের সেই রেস্তোরাঁ হলি আর্টিজান বেকারি অবৈধভাবে চলছিল বলে জানিয়েছেন গৃহায়ণ ও গণপূর্তমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন। তিনি বলেন, অনুমতি না নিয়েই অবৈধভাবে এ রেস্তোরাঁ পরিচালনা করা হচ্ছিল। এজন্য এর মালিকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।
রোববার বিকেলে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন মন্ত্রী।
তিনি বলেন, হলি আর্টিজান বেকারি অবৈধভাবে এবং কোনো ধরনের অনুমতি ছাড়াই চালু রেখেছিল এর মালিক। সেখানে একটা ঘটনায় বিদেশিদের হত্যা করা হয়েছে, যা বাংলাদেশে প্রথম। এ সময় মন্ত্রী যোগ করেন, অনেক পূর্বেই প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের জন্য, কিন্তু পরবর্তীকালে মানবিক ও বিদেশিরা থাকে এসব বিবেচনা করে ‘গো স্লো’ করে কাজ করছিলাম।
গুলশান ২ নম্বর সেকশনের ৭৯ নম্বর সড়কে ১০ কাঠার প্লটের উপর তৈরি ওই রেস্তরাঁটি বিদেশিদের কাছে জনপ্রিয় ছিল। লেকের ধারে এটির খোলা লন ছিল। যেখানে বিদেশি অনেকে রোদ পোহাতেন, শিশুদের খেলার পর্যাপ্ত জায়গাও ছিল। ফলে জনপ্রিয়তা বাড়তে থাকে এ রেস্তরাঁর।
উল্লেখ্য, ১ জুলাই রাতে গুলশান ২ নম্বরের হলি আর্টিজান বেকারি রেস্তরাঁয় ঢুকে দেশি-বিদেশি অন্তত ৩৩ জনকে জিম্মি করে একদল অস্ত্রধারী। পরদিন কমান্ডো অভিযানে ওই ক্যাফের নিয়ন্ত্রণ নেয় নিরাপত্তা বাহিনী। পরে সেখান থেকে ১৭ বিদেশিসহ ২০ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।

এ সম্পর্কিত আরও