ঢাকা : ২৬ মার্চ, ২০১৭, রবিবার, ৮:৫৭ অপরাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

ফিটনেসের উন্নতিতে চোখ ইমরুলের

kayas

আগামী বুধবার থেকে ইংল্যান্ড সিরিজের জন্য বাংলাদেশ জাতীয় দলের কন্ডিশনিং ক্যাম্প শুরু হবে। এ ক্যাম্পের জন্য এরইমধ্যে ৩০ সদস্যের প্রাথমিক স্কোয়াডও ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। ৩০ সদস্যের এই স্কোয়াডে আছেন অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান ইমরুল কায়েস। তবে ইংল্যান্ড সিরিজের কথা না ভেবে নিজের ফিটনেসের উন্নতির কথায় বেশি করে ভাবছেন তিনি।

মারিও ভিল্লাভারায়নের তত্ত্বাবধানে আগামী ২০ জুলাই থেকে জাতীয় দলের কন্ডিশনিং ক্যাম্প শুরু হবে। তবে এ ক্যাম্প শুরু হওয়ার আগে অনেকে নিজ উদ্যোগে অনুশীলন শুরু করেছেন। সোমবার মিরপুরে জিম সেশন শেষ করে জাতীয় দলের সিনিয়র ক্রিকেটার ইমরুল কায়েস সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হন। নিজের ফিটনেস উন্নতির জন্য আসন্ন কন্ডিশনিং ক্যাম্পকে হিসেবে  বেশ গুরুত্বের সঙ্গে দেখছেন ইমরুল।

অক্টোবরে বাংলাদেশ সফরে আসার কথা রয়েছে ইংল্যান্ড দলের। এ সিরিজকে সামনে রেখে ক্রিকেটারদের ফিটনেসের লেভেলটা আরো উন্নতি করতে কন্ডিশনিং ক্যাম্পের আয়োজন করেছে বিসিবি। এ প্রসঙ্গে ইমরুল কায়েস বলেন, ‘অনেকদিন পর আবার ফিটনেস ক্যাম্প করছি। কারণ এরকম সুযোগ সবসময় আসে না। একবার ফিটনেস ক্যাম্প করলে হয়তো এক-দুই বছর খুব ভালোভাবে ক্রিকেট খেলা যায়। তো প্রত্যেকটা খেলোয়াড়ই আমার মনে হয় গুরুত্বের সাথে ক্যাম্পটা করবে। নিজেদের ক্যারিয়ার এবং ফিটনেসের জন্য তারা কাজ করবে।’

মার্চে ভারতে অনুষ্ঠিত টি২০ বিশ্বকাপের পর আর কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলা হয়নি বাংলাদেশ দলের। তার ওপর গত ২২ জুন শেষ হয়েছে ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগ। এরপর ক্রিকেটাররা অনেকটা সময় আরাম-আয়েশের মধ্যেই দিন কাটিয়েছে। তাই দীর্ঘদিন পর কন্ডিশনিং ক্যাম্প শুরু হওয়ায় খেলোয়াড়রা আরো উপকৃত হবে বলে মনে করছেন ইমরুল কায়েস।

এ প্রসঙ্গে জাতীয় দলের এ বাঁহাতি ওপেনার বলেন, ‘বাংলাদেশ দলের সামনে অনেক খেলা রয়েছে। অক্টোবরে রয়েছে ইংল্যান্ড সিরিজ। আগামী বছরে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি। তবে তার আগে নিউজিল্যান্ড সফর। এরও আগে আয়ারল্যান্ডের সঙ্গে খেলা আছে। এইসব সিরিজ কিংবা টুর্নামেন্টের আগে ভালো একটি সময়ে আমরা কন্ডিশনিং ক্যাম্পটি পেয়েছি। বলতে পারেন আমার মনে হয় নিজেদের ফিটনেসের উন্নতি করার সেরা সুযোগ এটি।’

বাংলাদেশ জাতীয় দলের প্রধান কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহকে ছাড়াই শুরু হবে কন্ডিশনিং ক্যাম্প। তবে স্কিল ট্রেনিংয়ের সময় প্রধান কোচ হাতুরুসিংহেসহ অন্যান্য কোচরা চলে আসবে। এরআগে প্রিমিয়ার লিগ খেলেছেন ইমরুল কায়েস। তাই ঢাকা লিগে স্কিল বা ফর্মে ফেরার চেষ্টাও করেছেন তিনি। এ বিষয়ে ইমরুল বলেন, ‘অবশ্য সব সময়ই আমরা স্কিল উন্নতি করার জন্য চেষ্টা করি। একটু বিশ্রাম থাকলে আবার জিনিসটা ল্যাকিংস হয়ে যায়।

আমার কাছে মনে হয় সামনে ফিটনেস ক্যাম্পের পর যখন স্কিল নিয়ে কাজ করবো সবার তখন চেষ্টা করবে স্কিলে উন্নতি করার। তবে ফিটনেসের লেভেলটা ভালো থাকলে এমনতিতে স্কিলও ভালো হয়ে যায়। কন্ডিশনিং ক্যাম্পের ফিটনেসের পর স্কিল নিয়ে কাজ করা হবে। তখন প্রতিটি ক্রিকেটার স্কিলে আরো উন্নতি করার চেষ্টা করবে। তাই বলতে পারেন এটা আমাদের জন্য দারুণ একটা সুযোগ।’

এ সম্পর্কিত আরও

Best free WordPress theme

Check Also

শততম টেস্টে টাইগারদের জয় মেনে নিতে পারে নি আইসিসি!

. স্বাগতিক শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সফরকারী বাংলাদেশের শততম টেস্ট জয়কে স্বাভাবিক ভাবে নিতে পারেনি বিশ্ব ক্রিকেট …