Mountain View

স্কুলড্রেস না পড়ায় লক্ষ্মীপুরে শিক্ষকের বেতাঘাতে আহত ২০ শিক্ষার্থী

প্রকাশিতঃ জুলাই ১৯, ২০১৬ at ৯:৪৭ অপরাহ্ণ

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলার পানপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষকের বেতাঘাতে ২০ শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। পরীক্ষা চলাকালে ড্রেস (নির্দিষ্ট পোষাক) পরিধান করে না আসায় বিদ্যালয়ের শিক্ষক মো. সোলেমান ক্ষিপ্ত হয়ে বেতাঘাতের পর শ্রেণি-কক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের বের করে দেয়।
এঘটনায় মঙ্গলবার দুপুরে বিদ্যালয়ে পরিচালনা কমিটি, অভিভাবক ও স্থানীয় লোকজন জরুরি বৈঠক করেন। এসময় অভিযুক্ত শিক্ষক তার ভুল স্বীকার করে ভবিষ্যতে তিনি এ ধরনের কাজ না করার অঙ্গীকার করেন।
আহতরা হলো, ১০ম শ্রেণির ছাত্র ফাহাদ হোসেন, ইমন হোসেন, আরমান হোসেন, মিজান হোসেন, ৭ শ্রেণির তুহিন হোসেন, এমরান হোসেন ও সামাদসহ ২০ জন। তাদের পিঠ ও হাতসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। আহতরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিচ্ছেন।
অভিভাবক ও স্থানীয় সূত্র জানায়, বিদ্যালয়ে অর্ধবার্ষিক পরীক্ষা চলাকালে সোমবার দুপুরে শিক্ষক সোলোমান শ্রেণি কক্ষে যায়। এসময় তিনি ৭ম ও ১০ শ্রেণির ২০ শিক্ষার্থীকে এলোপাতাড়ি বেতাঘাত করে। এক পর্যায়ে তাদেরকে পরীক্ষা কেন্দ্রে থেকে বের করে দেয়া হয়। পরে তারা পরীক্ষায় অংশ নেয়। এনিয়ে ক্ষুদ্ধ হয়ে ওঠে ছাত্র ও অভিভাবকরা। এ ঘটনায় বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি শফিকুল ইসলাম, শিক্ষক, অভিভাবক ও এলাকাবাসী জরুরি বৈঠকে বসে।
জানতে চাইলে অভিযুক্ত শিক্ষক মো. সোলোমান বলেন, বারবার বলা সত্ত্বেও স্কুল ড্রেস না পরে পরীক্ষা কেন্দ্রে আসায় ভয় দেখানোর জন্য ছাত্র-ছাত্রীদের বেতাঘাত করেছি। অসর্তকতাবশত আঘাতগুলো করা হয়। বিষয়টি মিমাংসা হয়ে গেছে।
রামগঞ্জ উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মিজানুর রহমান ভূঁইয়া বলেন, অভিযুক্ত শিক্ষক তার ভুল স্বীকার করে ভবিষ্যতে তিনি এ ধরনের কাজ না করার অঙ্গীকার করেন। বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির বৈঠকে বিষয়টি সমাধান হয়েছে বলে আমাকে তারা জানিয়েছে।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View