ঢাকা : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭, রবিবার, ৬:৫৮ পূর্বাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

১৬টি দলকে নিরাপত্তা দেয়া গেলে একটি দলকে নিরাপত্তা দেয়া কঠিন কিছু নয়

jalal

এ বছরের জানুয়ারিতে নিরাপত্তা ঝুঁকির কারণ দেখিয়ে অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে অংশ নেয়নি অস্ট্রেলিয়া যুব দল। তবে ১৬ দলের মেগা ইভেন্টটি সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দিয়ে সফলভাবে শেষ করে স্বাগতিক বাংলাদেশ। জালাল ইউনুস মনে করেন ১৬টি দলকে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দেয়া গেলে একটি দলকে নিরাপত্তা দেয়া কঠিন কিছু নয়, ‘অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে ১৬টা দলকে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দিয়েছি। এবারো সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দেব। একটা টিমকে নিরাপত্তা দেয়া খুব সহজ। ইংল্যান্ড দলের জন্য সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে।’

গুলশান ও শোলাকিয়ায় সন্ত্রাসী হামলার পর অতিথি দলকে নিরাপত্তা দেয়ার ব্যাপারটিই আসছে সবার আগে। এজন্য প্রয়োজনীয় সব প্রস্তুতিই গ্রহণ করছে ক্রিকেট বোর্ড। ইতোমধ্যেই স্টেডিয়াম চত্ত্বরে জোরদার করা হয়েছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

ইংল্যান্ড সিরিজকে সামনে রেখে আজ (বুধবার) ২০ জুলাই থেকে প্রস্ততি ক্যাম্প শুরু করছে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। সিরিজ আয়োজনের প্রস্তুতি নিচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। প্রস্ততির বড় একটা অংশজুড়ে থাকছে নিরাপত্তা ইস্যু।

ইংল্যান্ড সিরিজ শুরু হতে এখনও বাকি প্রায় আড়াই মাস। তবে মিরপুরে ক্রিকেটারদের অনুশীলন শুরু কাল থেকেই। ক্যাম্প পরিচালনা করতে আগস্টের শুরুতে ফিরবেন বিদেশি কোচিং স্টাফরা। তাদের নিরাপত্তা ও ইংল্যান্ড সিরিজে বাড়তি নিরাপত্তা দিতে আগেভাগেই সহায়তা চেয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে চিঠি দিয়েছে বিসিবি।

এ ব্যাপারে বিসিবির মিডিয়া কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস গতকাল (মঙ্গলবার) ১৯ জুলাই সংবাদমাধ্যমে বলেন, ‘ইতিমধ্যেই আমরা বিসিবিতে ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়েছি। এছাড়া স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আমরা আবেদন করেছি।

আমাদের বিদেশি ষ্টাফরা এখানে থাকবেন। তাদের যদি বাড়তি কোনো নিরাপত্তা প্রয়োজন হয়… সেক্ষেত্রে আমরা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে সহযোগিতা পেতে পারি। এজন্য আগে ভাগেই আমরা তাদের কাছে চিঠি দিয়ে রেখেছি।’

বাংলাদেশ সফর নিয়ে ইতিবাচক মনোভাব রয়েছে ইংলিশদের। বিসিবির কাছে ইসিবি একটি মেইলও পাঠিয়েছে। যাতে নেতিবাচক কোনো শব্দ নেই। বরং আশাবাদী হওয়ার যথেষ্ট উপাদান আছে।

ইসিবি জানতে চেয়েছে, বাংলাদেশ সফরে ঢাকার অংশ শেষে ইংলিশ ক্রিকেটারদের ক্রিকেট গিয়ার্স কি বাসযোগে চট্টগ্রাম পাঠানো হবে, সেক্ষেত্রে কয়টা বাস লাগবে?

এবং সেগুলো ঠিক করে জানাতে বলা হয়। বিসিবি থেকে যথা-সময়েই জবাব পাঠানো হয়েছে। শেষ পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার পথে হাঁটবে না ইংল্যান্ড এমনটাই আশা করছে বিসিবি।

এ সম্পর্কিত আরও

Best free WordPress theme

Check Also

বাংলাদেশের বিপক্ষে কে পাচ্ছেন লঙ্কানদের নেতৃত্ব?

আগামী মঙ্গলবার বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের স্কোয়াড ঘোষণা করবে শ্রীলঙ্কা। সেদিনই জানা যাবে বাংলাদেশের বিপক্ষে …