ঢাকা : ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭, সোমবার, ৫:১৪ অপরাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

মুস্তাফিজেই সাসেক্সের ভরসা

প্রথম ম্যাচের মতো দ্বিতীয় ম্যাচে জ্বলে উঠতে পারেননি ‘দ্য ফিজ’, তাই ম্যাচও হেরেছে তার দল।

গত বৃহস্পতিবার মুস্তাফিজের অভিষেক ম্যাচে এসেক্স ঈগলস্ এর বিপক্ষে সাসেক্স ক্লাব ২০১ রানের টার্গেট ছুঁড়ে দিতে পেরেছিল। তাই তো দীর্ঘ বিমান ভ্রমণে ক্লান্ত মুস্তাফিজ ম্যাচের আগের রাতে দলের সঙ্গে যোগ দিয়েও আলো ছড়াতে সক্ষম হন, মাত্র ২৩ রান দিয়ে চারটি উইকেট নিয়ে ইংলিশ ক্রিকেটার ও সমর্থকদের চমকে দেন। তার নৈপুণ্যে পয়েন্ট টেবিলের নিচের দিকে থাকা সাসেক্স ক্লাব চার নম্বরে উঠে আসে।

কিন্ত শুক্রবার দলের ব্যাটিং ব্যর্থতায় মুস্তাফিজের জাদু দেখার সুযোগ হলো না সমর্থকদের।

সাসেক্স ক্লাবের এই হারের ফলে কেবল বাঙালি সমর্থকরাই হতাশ হননি, গতকালের এই ম্যাচ হারার ফলে কোয়ার্টার-ফাইনালে সাসেক্স ক্লাবের খেলা আবারও অনিশ্চিত হয়ে পড়লো। এসেক্সকে হারিয়ে পয়েন্ট টেবিলের সাত থেকে এসেক্সকে টপকিয়ে চার এ উঠেছিল, আর গতকাল সারের কাছে হারের ফলে এখন সাসেক্স ক্লাব ১৩ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের ছয় নম্বরে নেমে গেছে। অন্যদিকে, শুক্রবার অপর ম্যাচে কেন্ট স্পিটফায়ার্সকে হারিয়ে এসেক্স ১২ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের চার-এ অবস্থান করছে।

ইসিবি পারিচালিত ন্যাটওয়েস্ট টি-টোয়েন্টি ব্লাস্ট টুর্নামেন্টে গ্রুপ পর্যায়ে প্রতিটি দল মোট ১৪ টি করে ম্যাচ খেলছে। সাউথ গ্রুপে নয়টি দলের মধ্যে এ পর্যন্ত হওয়া ম্যাচের ভিত্তিতে ১৩ ম্যাচে ১৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রয়েছে গ্লুস্টারশায়ার। ১২ ম্যাচে ১৭ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে গ্ল্যামরগ্যান। আর ১২ ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে মিডলসেক্স আছে তৃতীয় স্থানে।

এসেক্স, সারে, সাসেক্স এবং কেন্ট- চারটি দলই এখন ১২ পয়েন্টের মালিক। তবে এই দলগুলোর মধ্যে সবচেয়ে সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছে এসেক্স, কারণ এসেক্সের এখনও দুটি ম্যাচ বাকি। আর সারে, সাসেক্স ও কেন্টের রয়েছে মাত্র একটি করে ম্যাচ। তাই আগামী ২৮ জুলাই মিডলসেক্স ও ২৯ জুলাই গ্ল্যামরগ্যানের বিপক্ষে জিতলে আর কোনো হিসেব ছাড়াই কোয়ার্টার-ফাইনালে উঠে যাবে এসেক্স। তবে দুটি ম্যাচই এসেক্স হারলে সাসেক্সের শেষ আটে ওঠার স্বপ্ন বেঁচে থাকবে। সেক্ষেত্রে মুস্তাফিজের সাসেক্স ক্লাবকে অবশ্যই ২৮ জুলাই গ্ল্যামরগ্যানের বিপক্ষে জিততে হবে। আর এসেক্স যদি একটি ম্যাচও হারে তাহলেও উভয় দলের সমান ১৪ পয়েন্ট থাকবে। এক্ষেত্রে রান রেটের ভিত্তিতে চতুর্থ স্থান নির্ধারিত হবে।

তাই আগামী ২৮ জুলাই বৃহস্পতিবার গ্ল্যামরগ্যানের বিপক্ষে মুস্তাফিজের সাসেক্স ক্লাবের ম্যাচটি হবে বাঁচা-মরার লড়াই। কোয়ার্টার-ফাইনালে খেলার জন্য সাসেক্স ক্লাবকে তাদের শেষ ম্যাচটিতে অবশ্যই জিততে হবে। শুধু জয়ই নয় এসেক্স ক্লাবের সঙ্গে সমান পয়েন্ট হলেও রান রেটে এগিয়ে যেতে হবে। তাই ক্লাবের প্রাণভোমরা মুস্তাফিজের দিকেই তাকিয়ে থাকবে সাসেক্স।

এ সম্পর্কিত আরও

Best free WordPress theme

Check Also

শ্রীলঙ্কার বিমানে মুশফিকরা, দুবাইয়ে উঠবেন সাকিব-তামিমরা

মুশফিকুর রহীমের নেতৃত্বে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে দেশ ছেড়েছে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। সোমবার …