ঢাকা : ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭, শনিবার, ৩:০৬ অপরাহ্ণ
সর্বশেষ
‘পিলখানায় জড়িত পলাতকদের আনার প্রক্রিয়া চলছে’ প্রতিবেশীদের জন্য নাকি যন্ত্রণাদায়ক তাই ১৮ বছর ধরে পাপড়ি ও অনন্যাকে শিকলে বেঁধে রাখা হয়েছে মোদির আমন্ত্রণ জানিয়ে ফিরলেন জয়শঙ্কর সীমান্তে প্রথম নারী বিজিবির সদস্য মোতায়েন আসুন ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা করি- বাংলিশ পরিহার করে গাংনীতে জামাইয়ের ছুরিকাঘাতে শ্বশুর পরিবারের চার জন আহত ॥ জামাই গ্রেফতার চুলাপ্রতি গ্যাসের দাম বাড়লো ৩০০ টাকা পুলিশের মহানুভবতা, মানবতা আজও ভূলুণ্ঠিত হয়নি! সেরাজেম মেরিট স্কলারশিপ এ্যাওয়ার্ড পেলেন ঢাবির ১১ শিক্ষার্থী দেশের ৬৮টি কারাগারে ‘৭৫৭৬৮ জন কারাবন্দী ফোনে কথা বলবে ’স্বজনদের সঙ্গে
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

হালুয়াঘাটের রাস্তাঘাটের বেহাল দশা- ১ম পর্ব (ধারা ইউনিয়ন)

 received_1037509736363326

মাজহারুল ইসলাম মিশু: গারো পাহাড়ের পাদদেশে অবস্থিত অবহেলিত উপজেলার নাম হালুয়াঘাট। উন্নয়নের দিক থেকে এই উপজেলা অনেকটাই পিছিয়ে।

বিশেষ করে এই বর্ষা মৌসুমে গ্রামের কাঁচা রাস্তাগুলোতে চলাচল করায় অতি কষ্টকর।

আজ আসছি হালুয়াঘাট উপজেলার ধারা ইউনিয়ন দিয়ে। উপজেলার ইউনিয়ন গুলোর মধ্যে ৯ ধারা ইউনিয়নকে হালুয়াঘাটের প্রাণকেন্দ্র বলা হয়। আর এখানে রাস্তাঘাটের বেহাল দশা দেখে অনেকের চোখ কপালে উঠার জোগার।ইউনিয়নের রাস্তাগুলোর মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা হচ্ছে ধারা থেকে কুতুরা হাজী বাড়ি মোড়, মাঝিয়াইল মোড় থেকে টিকুরিয়া হয়ে
রুস্তমপুর। করুয়াপাড়া- আশ্রমপাড়া রোড হয়ে চাদঁশ্রী। এছাড়াও ছোট খাটো অনেক রাস্তাতেই এখনো ইটের শুরকিও পড়েনি।

মাঝে মাঝে ইউপি চেয়ারম্যান ও মেম্বারগন পরিষদের পক্ষ থেকে মাটি কাটিয়ে থাকেন। এতে দু’একদিন চললেও আবারো একই অবস্থা বিরাজমান। শুধু তাই নয় ধারা মধ্য বাজার নালিতাবাড়ি রোডে রাস্তার উপর দোকান ও ড্রেনেজ ব্যবস্থার অভাবে মহাসড়কের পাশে হাটাই মুশকিল হয়ে পড়ে।

এই সমস্যাগুলো একদিনে যেমন তৈরী হয়নতেমনি একদিনে সমাধান করাও সম্ভব নয়। আমাদের পার্শবর্তী উপজেলা নালিতাবাড়িতে এমন কোন সড়ক পাওয়া যাবে না যেখানে উন্নয়নের ছোয়া লাগেনি।

এদিক থেকে আমাদের হালুয়াঘাট যে অনেকটা পিছিয়ে আছে তা বলার অপেক্ষা রাখেনা। ময়মনসিংহের উত্তরে দ্বিতীয় বৃহত্তর কওমি মাদ্রাসা “জামিয়া হুসাইনিয়া দারুল উলুম মাঝিয়াইল মাদ্রাসা”। অথচ এই মাদ্রসার রাস্তাটিতে এখন পর্যন্ত ইট বা শুরকি পড়েনি। বর্ষার এই মৌসুমে রাস্তাটি দিয়ে চলাচল করা খুবই কষ্টসাধ্য ব্যাপার।

এলাকার সাধারন জনগন তাকিয়ে থাকে সরকারের এমপি, চেয়ারম্যানসহ জন প্রতিনিধিদের দিকে। এলাকার উন্নয়নে
এবার দেখা যাক নব-নির্বাচিত এমপি মিস্টার জুয়েল আরেং এবং স্থানীয় চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদ বিপ্লব কি
ব্যবস্থা গ্রহন করেন।
(চলবে)

এ সম্পর্কিত আরও

Best free WordPress theme

Check Also

টাঙ্গাইলে ট্রাক-সিএনজি সংঘর্ষে মা ও ছেলে নিহত: আহত ৪

মোঃনাজমুল,হাসানঃঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের টাঙ্গাইল সদর উপজেলার আশেকপুর বাইপাস এলাকায় ট্রাক-সিএনজি সংঘর্ষে মা ও ছেলে নিহত হয়েছেন। …