Mountain View

৩ বছরের প্রেম, ধরা খেয়ে প্রেমিক খাটের নিচে

প্রকাশিতঃ জুলাই ২৬, ২০১৬ at ৩:২২ অপরাহ্ণ

received_1037615836352716

মাজহারুল ইসলাম মিশু: ময়মনসিংহ জেলার সীমান্ত হালুয়াঘাট উপজেলার খয়রাকুড়ি এলাকায় ভাড়াটিয়া এক বাসায় স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে প্রায় ৭ মাস যাবৎ অসামাজিক কাজে লিপ্ত রয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

২৫ জুলাই রাত ৯ টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সাংবাদিকগন উক্ত ভাড়াটিয়া বাসায় উপস্থিত হয়ে বাসার মালিকের
কাছে বিস্তারিত বর্ণনা শুনার পর প্রেমিক যুগলকে তাদের কক্ষ থেকে বেরিয়ে আসতে বললে প্রেমিক মোঃ ইসলাম বাবলু
(১৮) খাটের নিচে লুকিয়ে থাকে এবং প্রেমিকা বিউটি বেগম সালমা (৩৫) দরজা খুলে বেরিয়ে আসে।

বাবলু কোথায় জিজ্ঞাসা করলে সে জানায় বাসায় নেই। এমন সময় খালা সর্ম্পকের এক মহিলা তাদের কক্ষে প্রবেশ করে খাটের নিচে বাবলুকে দেখতে পায়। সাংবাদিকদের
ভয়ে প্রেমিক বাবলু খাটের নিচ থেকে বেরিয়ে আসতে রাজি না হওয়ায় বাসার মালিক রাগান্বিত হয়ে বাসা ছেড়ে চলে যেতে
বললে ঘন্টা খানেক পর সে বেরিয়ে আসে। পরিচয় সম্পর্কে প্রশ্ন করলে বাবলু বলে সে উপজেলার ধারা ইউনিয়নের বারইগাঁও এর মৃত আজমত আলীর পুত্র।

প্রেমিকা বিউটি বেগম সালমা গাজিরভিটা ইউনিয়নের সুমনিয়াপাড়া গ্রামের মৃত জলিল মারাকের কন্যা বলে জানায়। বিয়ে সর্ম্পকে জানতে চাইলে প্রেমিক যুগল উপস্থিত সাংবাদিকদের জানায় তারা বিয়ে ছাড়াই প্রায় তিন
বছর যাবৎ ঘর সংসার করে আসছে। কয়েক দিনের মধ্যেই তারা কাজি অফিসে গিয়ে বিয়ের কাজ সম্পন্ন করবে।

এ বিষয়ে বাসার মালিককে প্রশ্ন করলে তিনি জানান ভাই-
বোনের পরিচয়ে গত জানুয়ারী মাস থেকে তারা আমার বাসা ভাড়া নেয় । যেহেতু সম্পর্কের সাথে ঘটনার মিল নেই তাই
তাদেরকে আমার বাসায় আর থাকতে দিবনা। এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

এ সম্পর্কিত আরও

আপনিও লিখুন .. ফিচার কিংবা মতামত বিভাগে লেখা পাঠান [email protected] এই ইমেইল ঠিকানায়
সারাদেশ বিভাগে সংবাদকর্মী নেয়া হচ্ছে। আজই যোগাযোগ করুন আমাদের অফিশিয়াল ফেসবুকের ইনবক্সে।