ঢাকা : ১১ ডিসেম্বর, ২০১৬, রবিবার, ৩:৫৭ অপরাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

দাউদপুর ডিগ্রী কলেজ জাতীয়করণের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ

মোঃ আরিফ জাওয়াদ, দিনাজপুর প্রতিনিধি:- উত্তরবঙ্গের দক্ষিণ দিনাজপুর এর ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দাউদপুর ডিগ্রী কলেজকে জাতীয়করণের দাবিতে মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

১১ই আগস্ট (বৃহস্পতিবার) সকাল সাড়ে ১০টা থেকে জেলার নবাবগঞ্জ উপজেলার নবাবগঞ্জ-ভাদুরিয়া সড়কে ঘন্টা ব্যাপী এ কর্মসূচীতে অংশ নেয় উক্ত প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, কর্মচারী ও শিক্ষার্থী, এলাকাবাসী ব্যবসায়ীসহ এলাকার নানা শ্রেণীপেশার লোকজন অংশ নেন।

মানববন্ধন চলাকালে স্থানীয় আ. লীগ নেতা মোঃ আতাউর রহমান বলেন, “১৯৭২ খ্রিষ্টাব্দে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান রেল যোগে দিনাজপুরের বিরামপুরে এলে, দাউদপুরে একটি কলেজ স্থাপন করার দাবি তোলে নবাবগঞ্জের স্থানীয় শীর্ষ নেতারা। এসময় তিনি (বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান) দাউদপুরে একটি কলেজ স্থাপনার জন্য সর্বাত্মক সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন। পরবর্তীতে তার (বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান) দেওয়া ৫৬ বান্ডিল টিন দিয়ে এ কলেজ স্থাপনা কার্যকমের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। সোনার বাংলায় শিক্ষা বিস্তারের লক্ষে প্রতিষ্ঠিত হয়ে আজ পর্যন্ত সুনামে সাথে শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালিত করে আসছে প্রতিষ্ঠানটি।”

তিনি আরো বলেন, “জননেত্রী শেখ হাসিনা তার পিতার স্বপ্ন পূরণে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন ; দেশকে উন্নতির পথে নিয়ে যাচ্ছেন। সেই জন্য তাকে সাধু-বাদ জানাই।”

“এ ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান দাউদপুর ডিগ্রী কলেজকে জাতীয়করণের মাধ্যমে, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ওয়াদা রক্ষা করার জন্য জননেত্রী শেখ হাসিনাকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান”, তিনি।

এ দিকে কলেজটির শিক্ষক-কর্মচারীরা বলেন, কলেজটির প্রশাসনিক অবকাঠামো, ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষকদের আবাসিক ভবন, অধ্যক্ষের ভবন, তিন তলা বিশিষ্ট, মসজিদ, ২০ একর আবাদি জমি, বাগান, পুকুর সব মিলিয়ে বিপুল পরিমাণ সম্পদ থাকা সত্ত্বেও কলেজটি সরকারি নির্দেশনা ও পরিপত্র অনুযায়ী জাতীয়করণের দাবি রাখে।

অথচ উপজেলা সদর থেকে ১৩ কি.মি দূরে এক গ্রামে আফতাবগঞ্জ কলেজ, কিভাবে জাতীয়করণের আওতায় আসতে পারে? সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে বিষয়টি তদন্ত পূর্বক ব্যবস্থা নেয়ার জন্য জোর দাবি জানায়, কলেজটির শিক্ষক ও কর্মচারীরা।

মানব বন্ধন শেষে প্লাকার্ড, ফেস্টুন, ব্যানার নিয়ে সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে, দাউদপুর কাচারি চত্বরে সংক্ষিপ্ত সমাবেশেয় মধ্য দিয়ে দুপুর ১টার দিকে শেষ হয়।

এসময় নবাবগঞ্জ উপজেলা আ.লীগের সাধারন সম্পাদক মোঃ আতাউর রহমান, ৭নং দাউদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহেল আজীম (সোহাগ), বিশিষ্ট সমাজ সেবক এনামূল হক, কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, স্থানীয় এলাকাবাসী, গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব ও আদিবাসীরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রতিষ্ঠার পর ৪৪ বছর পেরিয়ে গেলেও কলেজটি জাতীয়করণ হয়নি। অথচ এ কলেজের চেয়ে অপেক্ষাকৃত নতুন কলেজগুলোকে জাতীয়করণ করা হচ্ছে। দীর্ঘ বছর অতিবাহিত হবার পরও জাতীয়করণ না হওয়ায় বিস্ময় প্রকাশ করেছে শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও স্থানীয়রা। তাই তারা প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রী’র সু-দৃষ্টি কামনা করেছেন সুশীল সমাজ।

এ দিকে নবাবগঞ্জ উপজেলা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার দীপক কুমার বণিক জানান, “এখন পর্যন্ত কোন কিছু সুনিশ্চিত করে বলা সম্ভব হচ্ছে না। তবে কোন প্রতিষ্ঠান জাতীয়করণ হবে তা শিক্ষামন্ত্রণালয় ও সরকারের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারই সিদ্ধান্ত নেবেন।”

এ সম্পর্কিত আরও

Check Also

টাঙ্গাইল মুক্তদিবস আজ

আজ ১১ ডিসেম্বর। টাঙ্গাইলের ইতিহাসে এক অবিস্মরণীয় দিন। ১৯৭১ সালের এই দিনে বংলার সূর্যসেনারা পাকিস্তানি …

Mountain View

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *