Mountain View

সোনা জয়ের জন্য মোটা অঙ্কের কর গুনতে হবে ফেলপসদের!

প্রকাশিতঃ আগস্ট ১৯, ২০১৬ at ১০:৩৮ অপরাহ্ণ

micel felps

বারবার রিওতে যুক্তরাষ্ট্রের পতাকা উড়ানোর উপলক্ষ্য তৈরি করে দিয়েছেন মাইকেল ফেলপস, সিমোনে বাইলসরা। কিন্তু দেশে ফিরলে তাদের এ অর্জনেও ভাগ বসাবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সরকার! ফেলপস-বাইলসদের উপার্জিত অর্থের বড় অংশই কর দিতে বেরিয়ে যাবে।রিও অলিম্পিকের ১৩ তম দিন শেষে যুক্তরাষ্ট্র ১০০টি পদক নিয়ে পদক তালিকায় সবার ওপরে রয়েছে। যার মধ্যে ৩৫ স্বর্ণ, ৩৩ রৌপ্য এবং ব্রোঞ্জপদক রয়েছে ৩২ টি। এ নিয়ে শেষ সাত অলিম্পিকের ছয়টিতেই পদকের ‘সেঞ্চুরি’ করল যুক্তরাষ্ট্র।

এবারের রিওতে অলিম্পিক কমিটি সোনা জয়ের জন্যে ২৫ হাজার ডলার পুরস্কার দিচ্ছে।রূপা ও ব্রোঞ্জের জন্য এর পরিমাণ ১৫ হাজার ও ১০ হাজার ডলার। পাঁচটি সোনা জয়ের পাশাপাশি একটি রূপা জিতেছেন ফেলপস। হিসাব অনুযায়ী পাঁচ সোনা ও এক রূপায় ফেলপসের আয় ১ লাখ ৪০ হাজার ডলার।

যুক্তরাষ্ট্রের কর আইন অনুযায়ী, এই আয়ের ৪০ শতাংশ কর দিতে হবে তাকে। অর্থাৎ প্রায় ৫৫ হাজার ৪৪০ ডলার কর দিতে হবে জলদানবকে। যা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ৪৩ লক্ষ ৫৩ হাজার ২৭৭ টাকা। শুধু ফেলপস না যুক্তরাষ্ট্রের সব ক্রীড়াবিদকে দেশে ফিরে এই কর দিতে হবে।

যদিও ফেলপসের জন্যে এ কর কিছুই না। কর নিয়ে ততটা উদ্বিগ্নও নন ফেলপস। এমনটাই জানালেন যুক্তরাষ্ট্রের গণমাধ্যম মানি নেশনে’র এর প্রধান ও গবেষক টম গ্রেরেনসার। বললেন, ‘ফেলপস তার কর নিয়ে উদ্বিগ্ন নন। কিন্তু অনেকেরই বার্ষিক আয় করের থেকেও কম। তারা কী করবে সেটাই বিবেচনা করতে হবে অলিম্পিক কমিটিকে।’

এদিকে, অধিকাংশ দেশই তাদের খেলোয়াড়দের অলিম্পিক অর্জনে কর মওকুফ করে। গ্রেট ব্রিটেন খেলোয়াড়দের থেকে কোনো কর গ্রহণ করে না। তাদের ভাষ্য, ‘খেলোয়াদের প্রেরণা যোগাতে কর মওকুফ করা বাধ্যতামূলক।’

কিন্তু এদিক থেকে যুক্তরাষ্ট্র একেবারেই ভিন্ন। যুক্তরাষ্ট্রে এ নিয়ে বিগত বছরগুলোতে আলোচনা হয়েছিল। কিন্তু কোনো ফল আসেনি। দুই রাজনৈতিক দল রিপাবলিকান ও ডেমোক্র্যাটদের পক্ষ থেকে মার্কিন সিনেট ও প্রতিনিধিসভায় অলিম্পিক কর বন্ধে বিলও আনা হয়েছিল। কিন্তু সেই বিল আজও পাস হয়নি।

তাই তো অলিম্পিকে পদক জয়ের পরও মোটা অঙ্কের কর গুনতে হচ্ছে ফেলপস-বাইলসদের।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View