Mountain View

ইরানকে হারিয়েই মিশন শুরু চায় বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ আগস্ট ২৬, ২০১৬ at ১১:২১ অপরাহ্ণ

bangladesh iran

ইরানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়েই ২০১৭ সালের আসরের বাছাই পর্ব শুরু করবে স্বাগতিক হিসেবে খেলতে নামা বাংলাদেশের মেয়েরা। অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাই পর্বের শেষ ম্যাচে গতবার এই ইরানের কাছেই হেরেছিল লাল-সবুজের খুদে ফুটবলাররা।

শেষ ম্যাচে ইরানের কাছে ২-১ ব্যবধানে হেরে তৃতীয় হয়েছিল বাংলাদেশ।নিজেদের প্রথম ম্যাচে ইরানকে পেয়ে কিছুটা সতর্ক থাকলেও প্রতিপক্ষকে হারিয়েই মিশন শুরু করতে চায় কৃষ্ণা রানী সরকারের দল।

আগামীকাল (শনিবার) ২৭ আগস্ট  বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা ছয়টায় মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ আর ইরান। ‘সি’ গ্রুপে বাংলাদেশের বাকি প্রতিপক্ষ চাইনিজ তাইপে, কিরগিজস্তান, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও সিঙ্গাপুর।

মোট ২৪টি দল এবারের বাছাইয়ে চারটি গ্রুপে ভাগ হয়ে খেলবে। প্রতিটি গ্রুপের সেরারা পাবে ২০১৭ সালে থাইল্যান্ডের মূল পর্বে খেলার টিকেট।

প্রায় তিন মাস ধরে চলা অনুশীলন আর প্রস্তুতির অংশ হিসেবে এরই মধ্যে কৃষ্ণারা জাতীয় দলের সাথে তিনটি ম্যাচ খেলেছেন, যেখানে তিনটিতেই তারা জাতীয় দলকে হারায়। প্রতিদিন দুই বেলা করে অনুশীলন করা এই মেয়েরাই ফেভারিট হিসেবে নিজেদের মাটিতে নামবে।

দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন জানালেন, আত্মবিশ্বাস নিয়েই আমরা মাঠে নামছি। ছয় দলের ভেতর থেকে গ্রুপে প্রথম হওয়া অবশ্যই কঠিন। কেননা এই ছয়টি দল থেকে যোগ্যতা অর্জন করবে একটিই দল।

তবে আমাদের মেয়েদের বিগত দুই বছরের আন্তর্জাতিক পারফরমেন্সের ধারাবাহিকতা এই টুর্নামেন্টে ধরে রাখতে পারলে আমরা এখানে শীর্ষস্থানধারী হতে পারবো। তবে, এই টুর্নামেন্টে ফেভারিট আমরাই।

ম্যাচ পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে তিনি আরও জানান, এখানে আমাদের কঠিন প্রতিপক্ষ ইরান ও চাইনিজ তাইপে। কাল শক্তিশালী ইরানের সঙ্গে আমাদের খেলা। বেশ শক্ত ফাইট হবে এই ম্যাচে।

আমরাও প্রস্তুত। জয়ের লক্ষ্য নিয়েই আমার ছাত্রীরা মাঠে নামবে। আশা করি নিজেদের সেরাটা দিয়েই তারা ম্যাচে জিতবে।এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ এর ‘সি’ গ্রুপ এর বাছাইপর্বের খেলাকে সামনে রেখে গত তিন মাস অনুশীলন করে আসছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল দল। ৪৩ জন প্রমীলা ফুটবলার নিয়ে গত ১৩ জুন ট্রায়াল করেছিলেন গোলাম রব্বানি ছোটন।

১৩, ১৪ ও ১৫ জুন ছিল তিন দিনের ট্রায়াল। সেখান থেকে প্রাথমিকভাবে ৩২ জন, দেড়মাস পরে তা নিয়ে আসা হয় ২৮ জনে। এরপর গত রোববার (২২ আগস্ট) এই ২৮ জনের মধ্য থেকে ২৩ জনের স্কোয়াড ঘোষণা করা হয়।

নারী দলের অধিনায়ক কৃষ্ণা রানী জানান, ‘আমরা সবাই ভালো অনুশীলন করেছি। সিনিয়রদের বিপক্ষে জিতেছি। অনূর্ধ্ব-১৪ তে নেপালে আমরা ইরানকে হারিয়েছি। এবারও ওদের সাথে আমাদের ভালো করার ইচ্ছা আছে। ওরা শক্তিশালী, কিন্তু আমরাও কম না। ফাইট দিয়ে খেলার ইচ্ছে আছে।’

এই অনূর্ধ্ব-১৬ নারী দলে আছেন ২০১৪ সালে নেপালে অনুষ্ঠিত এএফসি অ-১৪ উইমেন রিজিওনাল চ্যাম্পিয়নশিপে খেলা ১২ ফুটবলার। যাদের নিয়ে প্রথমবার চ্যাম্পিয়ন হবার গৌরব অর্জন করেছিল বাংলাদেশ। তাদের উপস্থিতিতে আর নিজেদের সেরা প্রস্তুতির অংশ হিসেবে বাংলাদেশের মিশনটা দুর্দান্ত হওয়ারই কথা।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View