রাজ্জাকের প্রশ্ন, কি অপরাধে আমার দলে সুযোগ মেলছে না?

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ৬, ২০১৬ at ১০:০৮ অপরাহ্ণ

স্পোর্টস ডেস্ক: দীর্ঘ দিন ধরে দলে নেই জাতীয় দলের নির্ভরযোগ্য স্পিনার আব্দুর রাজ্জাক। সর্বশেষ টেস্ট খেলেছেন ২০১৪ সালের ফেব্রুয়ারিতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজে। একই বছর ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলার পর থেকেই আছেন দলের বাইরে।

 

সবার ধারণা রাজ্জাকের ক্যারিয়ার শেষ। তবে তিনি মনে করেন তার এখনো অনেক কিছু দেওয়ার আছে দলকে। তিনি এখনো খুঁজে পান না কি কারণে তাকে দলে রাখা হয়নি। এ ব্যাপারে তিনি দেশের প্রথম সারির একটি পত্রিকাকে আক্ষেপ করে বলেছেন, ‘আমার কী সমস্যা, সেটা কেউ আমাকে বলে না। জানি

 

 

না, আমার অপরাধ কী বা আমার কোথায় ঘাটতি আছে। গত কয়েক মৌসুমে জাতীয় লিগ, বিসিএল, প্রিমিয়ার লিগে তো মনে হয় না খারাপ খেলেছি।’

 

হঠাৎ করে রাজ্জাকের আলোচনায় আসার কারণ জাতীয় দলে স্পিনারের ঘাটতি। অ্যাকশন জনিত সমস্যার কারণে আপাতত নিষিদ্ধ বাঁ-হাতি স্পিনার আরাফাত সানি। সাকিব আল হাসানের সাথে কে জুটি বাঁধবেন? – এই সংশয় থেকে আট বছর পর জাতীয় দলের ক্যাম্পে ডেকে আনা হয়েছে মোশাররফ হোসেন রুবেলকে। আছেন ২০১১ সালে সর্বশেষ জাতীয় দলের জার্সি গায়ে দেয়া সোহরাওয়ার্দী শুভ।

 

তাহলে, ওয়ানডেতে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ উইকেটশিকারী (২০৭) আব্দুর রাজ্জাক কেন নয়? বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু জানালেন ৩৪ বছর বয়সী রাজ্জাককে টিম ম্যানেজমেন্টের চাহিদা মাথায় রেখেই দলে রাখা হয়নি।

 

বললেন, ‘এই সিরিজের (আফগানিস্তান) জন্য তাকে আমরা চিন্তা করছি না। তবে আমাদের ভাবনায় সে আছে। যেকোনো সময় ওকেও ডাকা হবে। রাজ্জাক একজন সিনিয়র খেলোয়াড়। তার সার্ভিস আমরা আগেও পেয়েছি, ভবিষ্যতেও পেতে চাই। এখানে অবশ্য টিম ম্যানেজমেন্টের কিছু চাহিদা আছে। সেই চাহিদাও আমাদের দেখতে হয়।’

এ সম্পর্কিত আরও