Mountain View

মহাস্থানে জমজমাট কুরবানীর পশুর হাট,সাথে জাল টাকা সনাক্তকরণ বুথ

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ৭, ২০১৬ at ৮:১১ অপরাহ্ণ

গোলাম রব্বানী শিপন (মহাস্থান গড়) বগুড়া প্রতিনিধি: অার মাত্র হাতে গুণা কয়েক দিন বাঁকি। তারপরেই শুরু হতে যাচ্ছে মুসলিম সম্প্রদায় এর প্রিয় ধর্মীয় উৎসব পবিত্র কুরবানী ঈদ। এ কুরবানি ঈদ উপলক্ষ্যে বগুড়ার ঐতিহাসিক মহাস্থানগড় বৃহত্তম পশুহাটে ক্রেতা- বিক্রেতা ও উৎসুক জনতার ভীড়ে জমজমাট হয়ে উঠেছে। বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার মধ্যে সর্ববৃহত্তম কুরবানী গরুর হাট হিসাবে সরকারী ডাকের একমাত্র বিরল একটি হাট নামে সুপরিচত। এর অাশেপাশের হাট গুলো শুধু মাত্র প্রচারের মাধ্যমে কুরবানির সময় গরু-ছাগলের হাট বসালেও এটি সারা বছরই জমজমাটপূর্ন। সপ্তাহে দু’দিন বুধবার ও শনিবার এই হাট বসে। বুধবার ৭ সেপ্টেম্বর, দুপুর ৪ টায় মহাস্থানহাটের সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, দূর-দূরন্ত থেকে অাগত ক্রেতা-বিক্রেতা ও উৎসুক জনতার প্রচন্ড ভীড়ে যেন কোথাও পা রাখার জায়গা নেই। ক্রেতা- ও বিক্রেতা মিলে কুরবানীর হাট এতটায় জমজমাট হয়ে উঠেছে তারপরেও স্থানীয় ব্যবসায়ীরা বলছেন, পবিত্র কুরবানীর সময় হাতে গুণা অারোও বেশ কয়েকদিন থাকায় ক্রেতা ও বিক্রেতাদের উপস্থিত একটু সংকীর্ণ। মহাস্থান হাটের চত্বর পাশে ঘুরে দেখা যায়, হাটের বাড়তি নিরাপত্তার জন্য মোতায়েন করা হয়েছে আইন- শৃঙ্খলাবাহীনির কন্ট্রোল রুম।

46

এদিকে গরু-ছাগল বিক্রেতাদের সাথে প্রতারনা রোধে জাল টাকা লেন-দেন শনাক্ত করতে, বাংলাদেশ ব্যাংক এর নির্দেশনায় বসানো হয়ে ইসলামী ব্যাংক মহাস্থানগড় শাখা লিঃ এর তত্ত্বাবধানে সহযোগীতায়, রুপালী ব্যাংক লিঃ ও বাংলাদেশ কমার্স ব্যাংক লিঃ, এশিয়া ব্যাংক লিঃ এবং ঢাকা অাই এফ অাই সি ব্যাংক লিঃ এর ৪ টি শাখার সমন্বয়ে বুথ স্থাপনে ১০ জন কর্মকর্তা সর্বদায় জাল নোট শনাক্তকরণ মেশীন নিয়ে তারা প্রস্তুত বলে এই প্রতিনিধিকে জানান। পাশাপাশি পশুর স্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে মহাস্থানহাটে ভেটেরিনারি মেডিকেল টিমের দায়িত্ব পালন করছেন, শিবগঞ্জ উপজেলা প্রাণী অধিদপ্তর ভেটেরিনারী এর প্রধান সার্জন ডাঃ মোঃ অামিনুর ইসলাম, মোঃ রফিকুল ইসলাম, ভিএফএ, সেচ্ছাসেবী জুলফিকার অালী ও অারেক সেচ্ছাসেবী অাবু হাসান। দীর্ঘ অায়তন নিয়ে গঠিত এই মহাস্থান হাটে হাজার হাজার গরু-ছাগলের মধ্যে আসা বগুড়ার গড় মহাস্থান গ্রামের মোঃ রনি হোসেন নামের এক ব্যক্তি বিশাল আকৃতির একটি গরু নিয়ে এসেছেন। তার সাথে কথা বললে তিনি জানান, গত বছর তার এই গরুটি ১লক্ষ ৪০ হাজার টাকা দাম উঠেছিল। এবার অাবারো নিয়ে এসেছে। সারাহাট ঘুরে সর্বোচ্চো ২লক্ষ ৫০ হাজার টাকা মূল্যের গরু পর্যন্ত দেখা গেছে। তবে গত বারের চেয়ে এবার মহাস্থানহাটে গরুর দাম অনেকটায় কম বলে ক্রেতা ও বিক্রেতারা জানায়। মহাস্থান হাটের ইজারাদারেরা জানান, হাটের ক্রেতা-বিক্রেতারা যাতে কোন সমস্যার সম্মুখীন না হয় সেজন্য যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। হাট চলাকালিন মহাসড়কে যানজট রোধে বেশ কয়েকটি পয়েন্টে ট্রাফিক পুলিশকেও দায়িত্ব পালন করতে দেখা গেছে।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View