ঢাকা : ২১ অক্টোবর, ২০১৭, শনিবার, ৮:৪৬ পূর্বাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / ১০ টাকা কেজি চালের তালিকায় বিত্তবানদের নাম

১০ টাকা কেজি চালের তালিকায় বিত্তবানদের নাম

প্রকাশিত :

received_1779040722364249
১০ টাকা কেজি চালের তালিকায় বিত্তবানদের নাম
জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে ১০ টাকা কেজি চালের তালিকায় বিত্তবানদের নাম থাকার অভিযোগ পাওয়া গেছে। অনিয়মের প্রতিবাদে হত-দরিদ্ররা প্রায় প্রতিদিন বিক্ষোভ মিছিলসহ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট লিখিত অভিযোগ করছেন। : কার্ড বঞ্চিত হত-দরিদ্রদের অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার প্রায় সব ইউনিয়নেই ব্যাপক অনিয়ম হয়েছে। তার মধ্যে বেশি ধরঞ্জী ও আওলাই ইউনিয়নে। এ বাণিজ্যের সাথে জড়িতরা হলেন আওলাই ইউনিয়নের আব্দুল আওয়াল ফিরোজ ও সাইদুল ইসলাম। তালিকাভুক্তদের মধ্যে এলাকার বিত্তবান দ্বিতল বাড়ির মালিক ও আমেরিকা প্রবাসীসহ একই পরিবারের একাধিক ব্যক্তি রয়েছেন। আওলাই ইউনিয়নের তালিকাভুক্তরা হলেন প্রবাসীর ভাই জাকারিয়া আলম, বিত্তবান ব্যক্তি নুনু মিয়া ও পোল্ট্রি ফার্মের মালিক বাবুল মিয়াসহ অসংখ্য ব্যক্তি। এর ফলে এলাকার হত-দরিদ্র ব্যক্তিরা সরকারের এ সুবিধা থেকে বঞ্চিত হওয়ায় ক্ষোভে-বিক্ষোভে ফেটে পড়ছেন। আওলাই ইউনিয়নের ১নং ইউপি সদস্য মেহেদী হাসান অনিয়মের প্রতিবাদ করায় অর্থ বাণিজ্যকারীরা মেহেদী হাসানকে লাঞ্ছিত ও তার মোটরসাইকেল ভাঙচুর করে অগ্নিসংযোগের চেষ্টা করে। এ বিষয়ে স্থানীয় বঞ্চিত ৫ শতাধিক হত-দরিদ্র নারী-পুরুষ বিক্ষোভসহ মিছিল নিয়ে গতকাল মঙ্গলবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট লিখিত অভিযোগ দাখিল করেন। বিক্ষোভ মিছিল শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয় চত্বরে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ১ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি রেজাউল করিম, ইউপি সদস্য মেহেদী হাসান ও আজাহার আলী প্রমুখ। : এ ব্যাপারে আওলাই ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক মন্ডলের সঙ্গে অনিয়মের বিষয়ে কথা বললে তিনি জানান, গত ১৪ আগস্ট আমি ক্ষমতা পাওয়ার আগে সাবেক চেয়ারম্যান তাওহিদ আলম ১ হাজার লোকের তালিকা তৈরি করেছিলেন। আমি দায়িত্ব নিয়ে যাচাই বাছাই করে হত-দরিদ্র ৩৯২ জনের তালিকা করেছি। আগের তালিকা সম্পর্কে আমার কাছে ১ নং ওয়ার্ডের নব নির্বাচিত সদস্য মেহেদি হাসান বলেন, আগের তালিকার কার্ড বিতরণ করার সময় প্রতি কার্ডে ৫০ থেকে ১০০ টাকা আদায় করেছেন আগের চেয়ারম্যানের লোকজন। এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নূরউদ্দিন আল ফারুকের সাথে কথা বললে তিনি অনিয়মের অভিযোগ পাওয়ার কথা স্বীকার করে বলেন, আমি বিষয়টি খতিয়ে দেখছি।

এ সম্পর্কিত আরও

Check Also

ত্রিমুখী দ্বন্দ্বের শিকার উত্তরা গণভবন, নেপথ্যে গাছ আর মাছ!

নাটোরের ঐতিহ্যের সাথে মিশে আছে শত বছরের ইতিহাসের স্মারক উত্তরা গণভবন। সপ্তাহব্যপী এই ঐতিহাসিক স্থাপনা …

Leave a Reply