Mountain View

টেস্টের জন্য দল সাজানো নিয়ে যা লিখলেন আশরাফুল

প্রকাশিতঃ অক্টোবর ১৭, ২০১৬ at ১:০১ অপরাহ্ণ

1476684617

স্পোর্টস ডেস্ক : ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট। সেই টেস্টের জন্য দল নির্বাচন আসলেই কঠিন এবং গুরুত্বপূর্ণ একটি কাজ। এ কাজটি যাদের ওপর ন্যাস্ত, তাদের বেশ ঘাম ঝরাতে হয়েছে এই দলটি দাঁড় করাতে। শেষ পর্যন্ত প্রথম টেস্টের জন্য যে দল ঘোষণা করা হয়েছে, সেটি দেখে মনে হচ্ছে, অনেক ভেবে-চিন্তে ভারসাম্য আনার চেষ্টা করেছেন নির্বাচকরা।

দলটির দিকে তাকালে দেখবেন ৭ জন মোটামুটি নিশ্চিত, যাকে বলে অটোমেটিক চয়েজ। এক নম্বর থেকে শুরু করে ৬ নম্বর পর্যন্ত তো কোন প্রশ্ন নেই। তামিম, ইমরুল, মুমিনুল, মাহমুদুল্লাহ, সাকিব এবং মুশফিক। স্পিনিং ট্র্যাক হিসেবে তাইজুলও অটোমেটিক চয়েজ। বাকি চারটি জায়গা পূরণের জন্য আরও সাতজনকে নিয়ে ১৪ জনের দল ঘোষণা করেছেন নির্বাচকরা। এই সাতজনের মধ্য থেকে তিনজনকে বাদ দিয়ে একাদশ সাজাতে হবে।এ কাজটি টিম ম্যানেজমেন্টের। তবে বাকি চারটি স্থানে আমার মনে হয় একাধিক নতুন মুখ দেখা যেতে পারে। চারজনকে তো নেয়া হয়েছে যারা টেস্ট ক্রিকেটে একেবারে নতুন, অভিষেকের অপেক্ষা। মেহেদী হাসান মিরাজ তো যে কোন ফরম্যাটেই জাতীয় দলে নতুন।

সুতরাং তারুণ্যের জয়গানও বলা চলে একে। নুরুল হাসান সোহানকে নেয়া হয়েছে এক্সট্রা উইকেটরক্ষক হিসেবে। গত বছর দেখেছি মুশফিক কিপিং করেনি, তার পরিবর্তে কিপার ছিলেন লিটন দাস। এবার তার অফ ফর্ম, সঙ্গে ইনজুরি। সুতরাং, তার বিকল্প হিসেবে নুরুল হাসান সোহানের অভিষেকটা হতে পারে।

যদি মুশফিক কিপিং না করে। আর যদি মুশফিক কিপিং করে, তাহলে সোহান নয়, সাত নম্বর ব্যাটসম্যান হিসেবে সাব্বির রহমানেরই দলে সুযোগ পাওয়ার কথা বেশি। বাকি তিনটি স্থানে রয়েছেন মেহেদী হাসান মিরাজ, শুভাগত হোম, সৌম্য সরকার, শফিউল ইসলাম কিংবা কামরুল ইসলাম রাব্বী। টিম ম্যানেজমেন্ট কী চিন্তা করবে এটা তাদের ব্যাপার। হয়তো দুই পেসার নিতে পারে।

সেক্ষেত্রে মিরাজ, সৌম্য কিংবা শুভাগত হোমের যে কোন একজনকে খেলানো হবে। আবার পেসার যদি শুধু একজন নেয়া হয়, তাহলে মিরাজ আর শুভাগতকে একসঙ্গে খেলানো হবে। আমার কেন যেন মনে হয়, একজন পেসারকে নিয়ে একই সঙ্গে মিরাজ আর শুভাগতকে নিয়ে নেয়া হব। দুজনেই অফ স্পিন ভালো করে। মিরাজ তো অনেক ভালো বোলার। ঘরোয়া প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে সে অনেক ভালো পারফরমার।

বিশেষ করে বোলার হিসেবে সে অনেকগুলো ম্যাচে ভালো খেলেছে। নির্বাচকদের দৃষ্টিতে এটা ভারসাম্যপূর্ণ একটি দল ঠিক আছে। তবে আমার মনে হয়, শাহরিয়ার নাফীসকে নিলে ভালো হতো। একে তো অভিজ্ঞ। তার ওপর ঘরোয়া ক্রিকেটে সে দারুণ ক্রিকেট খেলছে। ফিটনেস লেভেলও সম্ভবত খুব ভালো। তবুও নির্বাচকরা হয়তো সুদুর প্রসারী কোন চিন্তা-ভাবনা থেকে হয়তো সৌম্যকে রেখে দিয়েছে এবং শাহরিয়ার নাফীসকে বাদ দিয়েছেন। এর কারণ হতে পারে, সামনে নিউজিল্যান্ড সিরিজের জন্য সৌম্যকে দলে রেখে অনুশীলন করানো, যাতে নিউজিল্যান্ড সিরিজের আগেই পুরোপুরি ফিট হয়ে ফিরতে পারে সে।-

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View