Mountain View

র‌্যাব-৮ এর বিশেষ অভিযানে বরগুনায় ১৩ জলদস্যুর আত্মসমর্পণ

প্রকাশিতঃ অক্টোবর ২০, ২০১৬ at ১:৪১ অপরাহ্ণ

সুন্দরবনের শরণখোলায় র‌্যাব-৮ এর বিশেষ অভিযানে আটক ১৩ জলদস্যু স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের কাছে দেশি-বিদেশি আগ্নেয়াস্ত্র ও গুলিসহ আত্মসমর্পণ করেছেন। বৃহস্পতিবার বেলা ১২টায় বরগুনার সার্কিট হাউজ ময়দানে আনুষ্ঠানিকভাবে জলদস্যু সাগর বাহিনীর প্রধানসহ ১৩ জন আত্মসমর্পণ করেন। এসময় উপস্থি ছিলেন র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজির আহমেদ ও র‌্যাব-৮ এর পরিচালক মো. ইফতেখারুল মাবুদ।
তারা হলেন বাহিনীর প্রধান আলমগীর শেখ ওরফে সাগর, কামরুল ফকির, আব্দুল মালেক, হাসান সরদার, নান্না ফকির, তোহিদুল ইসলাম, আব্দুল কাদের শেখ, হাফিজুর রহমান শেখ, কবির সরদার, দেলোয়ার শেখ, রাজু শেখ, লিটন হাওলাদার, তারিকুল গাজী। তাদের সকলের বাড়ি বাগেরহাট ও মোড় লগনজ উপজেলায়।
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ইতোমধ্যে যারা আত্মসর্পণ করেছে তাদের আইনি সহযোগিতা করছি। আরো যারা স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসতে চাইবে আমরা তাদেরও সহযোগিতা করবো।
র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজির আহমেদ বলেন, অনেকদিন ধরেই এ অঞ্চলে বনদস্যু ও জলদস্যুদের কারণে মানুষের স্বাভাবিক জীবন-যাপন ব্যাহত হচ্ছে। এ সরকার র‌্যাব প্রধানের নেতৃত্বে টাস্কফোর্স গঠন করে তাদের বিরুদ্ধে অভিযান শুরু করে। এরপর থেকে একে একে বিনা শর্তে বিভিন্ন বাহিনী আত্মসমর্পণ করছে।
আত্মসমর্পণকালে দস্যুরা আটটি বিদেশি একনলা বন্দুক, তিনটি দেশিয় একনলা বন্দুক, একটি বিদেশি দোনালা বন্দুক, দুইটি পয়েন্ট টুটুবোর এয়ার রাইফেল, চারটি এলজি এবং দুইটি কাটারাইফেল ও ৫৯৬ রাউন্ড গোলাবারুদ জমা দেন।
প্রসঙ্গত, বঙ্গোপসাগরে জলদস্যু দমনে সুন্দরবনের বিভিন্ন পয়েন্টে বিশেষ অভিযান চালানো হয়। এ সময় জলদস্যু সাগর বাহিনীর প্রধানসহ দস্যুরা দেশি-বিদেশি আগ্নেয়াস্ত্র ও গুলিসহ আত্মসমর্পণ করার সিদ্ধান্ত নেন।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View