ঢাকা : ৪ ডিসেম্বর, ২০১৬, রবিবার, ১০:১৫ অপরাহ্ণ
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site

শিশুশ্রম বন্ধে পায়ে হেঁটে ৬৪ জেলায় যাত্রা

দিনাজপুরের ২১ বছরের তরুণ নাসিম তালুকদার। ১৩০ দিনে দেশের ৬৪ জেলার চার হাজার কিলোমিটার পথ পায়ে হেঁটে পাড়ি দিয়ে দেশ ভ্রমণে বেরিয়েছেন শিশুশ্রম বন্ধের ম্লোগাণ নিয়ে।
full_1478837951_1478013251
দিনাজপুর জিরো পয়েন্ট থেকে ২২ অক্টোবর সকালে হাঁটা শুরু করে গাইবান্ধা, বগুড়া, জয়পুরহাট, নওগাঁ পার হয়ে ষষ্ঠ জেলা হিসেবে সোমবার বিকেলে তিনি পৌঁছান চাঁপাইনবাবগঞ্জে। মঙ্গলবার চাঁপাইনবাবগঞ্জের দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শাহ নেয়ামতুল্লাহ কলেজ ও সরকারী পলিটেকনিক ইনিস্টিটিউটে প্রচারণা চালান। কথা বলেন পথ শিশুদের সাথে। বুধবার সকালে আবার যাত্রা শুরু করবেন রাজশাহীর পথে।

তিন ভাই-বোনের মধ্যে তিনি বড়। ২০১৪ সালে দিনাজপুরের কে.বি.এম কলেজ থেকে উচ্চমাধ্যমিক পাস করে ডিগ্রী অধ্যয়নরত অবস্থায় পারিবারিক অসচ্ছলতা কারণে লেখপড়া ত্যাগ করেন। কিন্তু মানুষের জন্য কিছু করার সাধ তার ছেলেবেলা থেকেই। স্কাউটস এর সাথে জড়িত অনেক দিন থেকেই। দিনাজপুর জেলা রোভার স্কাউটস এর সদস্য তিনি। সেখান থেকেই শিখেছেন মানুষের জন্য কিছু করার বিষয়গুলি।

ফুলবাড়ি উপজেলার রাজারামপুরের হারুনুর রশিদের ছেলে নাসিম কাজ করেন একটি অটো রাইস মিলে। তার মা নাজমা খানম বাক প্রতিবন্ধী।

এবছরের শুরুতে তার দেখা হয় ফেনির জাহাঙ্গীর আলম শোভন নামে একজনের সাথে। শোভন ‘দেখব দেশ, গড়ব বাংলাদেশ’-শ্লোগানে ৪৭ দিনে টেকনাফ থেকে তেঁতুলিয়া পায়ে হেঁটে পাড়ি দিচ্ছিলেন। শোভন তাকে অনুপ্রেরণা দেন ব্যতিক্রম কিছু করার। যেটা মানুষের কাজে লাগবে আর মানুষ তাকে মনেও রাখবে। সেই থেকে তার স্বপ্ন কিছু করার। নেমে পড়লেন কঠিন এক ব্রত নিয়ে পথে।

১৯ অক্টোবর তিনি দেখা করেন দিনাজপুর পুলিশ সুপার হামিদুল আলমের সাথে। তিনি তাকে শিশু শ্রম বন্ধের সাথে সাথে ‘মাদককে না বলুন’ এবং ‘ইভটিজিং কে না বলি’ ইত্যাদি ম্লোগাণগুলিও প্রচারনার জন্য বলেন। সেগুলি নিয়েও প্রচারনা চালাচ্ছেন নাসিম।

এখন পর্যন্ত তার সাথে রয়েছেন দিনাজপুর জেলা রোভার স্কাউস এর আরেকজন সদস্য দিনাজপুর টেক্সটাইল ইনিস্টিটিউটের ছাত্র মো.আতিকুজ্জামান। তার লক্ষ্য ১৫০ কিলোমিটার পথ পায়ে হেঁটে প্রেসিডেন্ট রোভার স্কাউটস এওয়ার্ড অর্জন।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের স্কাউটস সংগঠন মূক্তমহাদল ভবনে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়কালে যখন কথা হচ্ছিল নাসিমের সাথে তখন আতিক জানান, যতদূর সম্ভব নাসিমের সাথে থাকবেন তিনিও। নাসিমের পথচলার সুবিধে তার সংগঠন স্কাউটস। দেশব্যাপী ছড়িয়ে থাকা সংগঠনের সদস্য ও কর্মকর্তারা সাহায্য করছেন তাকে সবখানেই।

প্রেস ব্রিফিং এ উপস্থিত ছিলেন জেলা স্কাউটস এর সহসভাপতি ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ সরকারী কলেজের বাংলা বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক মাযহারুল ইসলাম, সম্পাদক নামোশংকরবাটী উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আসলাম কবীর এবং মূক্ত মহাদলের প্রতিষ্ঠাতা ও জেলা স্কাউটস কমিশনার মুশফিকুর রহমান। অদম্য নাসিম তালুকদারের এমন চেষ্টায় সাহয্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে তাকে স্পন্সর করছে একটি পোষাক প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান।

এ সম্পর্কিত আরও

Check Also

images

লাইটার কারখানায় দগ্ধ আরেক কর্মীর মৃত্যু

ঢাকার আশুলিয়ায় গ্যাস লাইটার কারখানায় অগ্নিকাণ্ডে দগ্ধ হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরও এক কর্মীর মৃত‌্যু হয়েছে। …

Mountain View

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *