Mountain View

সেন্সরে পরীমনির “আমার প্রেম আমার প্রিয়া”

প্রকাশিতঃ নভেম্বর ১৭, ২০১৬ at ৫:২৮ অপরাহ্ণ

fb_20161117_10_22_44_saved_pictureবিনোদন ডেস্ক: কচ্ছপ গতিতে নির্মাণ কাজ হয় আলোচিত ‘আমার প্রেম আমার প্রিয়া’ ছবির। প্রায় ২ বছর তো হবেই! তারপর নানা ঝক্কিঝামেলা সামলে অবশেষে সেন্সরে যাচ্ছে কায়েস আরজু ও পরীমনি জুটির প্রথম ছবি ‘আমার প্রেম আমার প্রিয়া’। 
 
ছবির নির্মাতা শামীমুল ইসলাম শামীম জানান, আগামী ২৫ নভেম্বর ছবিটি সেন্সর বোর্ডে জমা দেয়া হবে। তিনি আরো বলেন, ‘বর্তমানে ছবির ডাবিং চলছে এফডিসির সাউন্ড রেকর্ডিং রুমে। শেষ হলেই সেন্সরে জমা দেব।’
 
আরজু-পরী ছাড়াও ছবির বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন মিশা সওদাগর, আলীরাজ, রেবেকা, ডন প্রমুখ। ওয়ান স্টার ইন্টারন্যাশনাল মুভিজের ব্যানারে, মোজাম্মেল হক খানের প্রযোজনায় নির্মিত হয়েছে ‘আমার প্রেম আমার প্রিয়া’ ছবিটি।
 
ছবির বেশির ভাগ শুটিং হয়েছে গাজীপুরের হোতাপাড়ায়। যেখানে একটা ছবির কাজ শেষ করতে এখন দু-তিন মাস লাগে আর এই ছবিটি শেষ করতে দুই বছর কেন লাগলো?
 
নির্মাতা শামীম বলেন, ছবির গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করেছেন পরীমনি। মূলত তার সিডিউল জটিলতায়ই ছবির কাজ আটকে ছিল বারবার। যখন সিডিউল দিতেন তখন সময় মতো সেটে আসতেন না। এ কারণে ছবির বাজেটের চেয়েও কয়েক লাখ টাকা বেশি খরচ হয়েছে। 
 
আরো বলেন, সর্বশেষ গত ২১ অক্টোবর ছবির শেষ একটি গানের শুটিং করার জন্য পরীমনি সিডিউল দিয়েছেন। তার কথা মতো হোতাপাড়ায় সেট নির্মাণ করি। অথচ তিনি আসেননি। তাকে বাদ দিয়ে ছবির শুটিং শেষ করেছি। 
 
ক্ষোভ ঝেড়ে এই নির্মাতা বলেন, ‘এর আগে পরীমনি অনেকবারই এমন করেছেন। গতবছর এফডিসির ২ নম্বর ফ্লোর থেকে শুটিং ছেড়ে তেজ দেখিয়ে চলে গিয়েছিলেন। তার কারণেই ছবির শুটিং করতে এতো দিন লাগলো। যাই হোক, শুটিং শেষ করেছি এটাই আনন্দের। এখন ডাবিং করছি। এখন ছবিটি আগামী ফেব্রুয়ারিতে মুক্তি দিতে পারলেই বাঁচি!

এ সম্পর্কিত আরও