Mountain View

বিয়ে ভাঙার পর যে সিদ্ধান্তটির কথা জানিয়ে ফের আলোচনায় কন্ঠশিল্পী সালমা

প্রকাশিতঃ নভেম্বর ২৭, ২০১৬ at ৭:২৯ অপরাহ্ণ

c8d46453046f029e31c9fbbbefac1c8ex600x400x46পারিবারিক কলহের জের ধরে কণ্ঠশিল্পী মৌসুমী আক্তার সালমা ও সাংসদ শিবলী সাদিকের মধ্যে ডিভোর্স হয়ে গেছে।

গত ২০ নভেম্বর রাজধানীর ধানমণ্ডি এলাকার একটি রেস্তোরাঁয় দুই পরিবারের উপস্থিতিতে তালাকের কার্য সম্পন্ন হয়েছে বলে জানা গেছে। এ সময় শিবলি সালমাকে মোহরানার ২০ লাখ ১ টাকা বুঝিয়ে দেন। বিয়ে বিচ্ছেদের পর একে অপরের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলছেন কন্ঠশিল্পী সালমা ও তার স্বামী শিবলী সাদিক।

এ বিষয়ে সংগীতশিল্পী সালমা জানালেন, তিনি ও তার স্বামী শিবলী সাদিক আর একসঙ্গে নেই। বিচ্ছেদ হয়েছে তাদের বিয়ের। ২০ নভেম্বর তারা চূড়ান্তভাবে আলাদা হয়েছেন। বেশ কিছুদিন
ধরেই চলছিল তাদের পারিবারিক সমস্যা। অবশেষ তারা বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নেন।

সালমা বলেন, অনেকদিন ধরেই আমাদের মনোমালিণ্য চলছিল। অনেক চেষ্টা করেছি কিন্তু সংসার বাঁচাতে পারলাম না। অনেক কিছু মেনেও নিয়েছি। আমার প্রিয় বিষয় গান-বাজনা বন্ধ করে দিয়েছিলাম। তার মতো করে চলতে চেয়েছি। আসলে আমরা দুজনই আলাদা ভুবনের। সে রাজনীতিক আর আমি গানের মানুষ। আমার এ বিয়ে করাটাই ছিল ভুল। অল্প বয়সে না বুঝেই আমার জীবনের বড় ভুলটি করেছি।

পাল্টা অভিযোগ স্বামী দিনাজপুর-৬ আসনের এমপি শিবলী সাদেকেরও। তিনি বলেন, তিনি বলেছেন, সালমার উচ্ছৃঙ্খল জীবনযাপনই বিবাহ বিচ্ছেদের মূল কারণ। তিনি দাবি করেন, সালমার অস্বাভাবিক চলাফেরার কারণেই বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটেছে।

এমপি শিবলী বলেন, ‘আমার পরিবার ও বংশ সম্পর্কে আপনাদের হয়তো ধারণা আছে। দিনাজপুরের স্বপ্নপুরী পিকনিক স্পটের সুবাদে অনেকে আমাদের চেনেন। সালমার অস্বাভাবিক চলাফেরার কারণেই বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটেছে। সালমা রাত-বিরাতে বিভিন্ন জায়গায় যায়। এটিই মূল সমস্যা হিসেবে দেখা দিয়েছে। এটাই আমরা এক্সসেপ্ট করতে পারিনি।

তবে আর যাই হোক সর্বশেষ সালমা জানিয়েছেন, তিনি আর বিয়ে করবেন না। কারণ হিসেবে তিনি বলেন, তিনি তার শিশু স্নেহাকে স্নেহ থেকে বঞ্চিত করতে চান না।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View