সুচির দাবি প্রত্যাখ্যান

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ১৯, ২০১৭ at ৩:৩০ অপরাহ্ণ

 

মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সেলর অং সান সুচির দাবি প্রত্যাখ্যান করেছেন সহিংসতা থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা মুসলিমরা। ২৫ শে আগস্ট রাখাইনে সহিংসতা শুরুর পর মঙ্গলবার প্রথম মুখ খুলেছেন অং সান সুচি। তিনি জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিয়েছেন। বলেছেন, রাখাইনে মুসলিম সংখ্যালঘুদের অনেক বেশি সদস্য এখনও নিরাপদে আছেন। বেশির ভাগ রোহিঙ্গা মুসলিম রাখাইন ছেড়ে যায় নি। বেশির ভাগ গ্রামে এখনও সহিংসতার ছোঁয়া লাগে নি। বক্তব্য দেয়ার সময় রাজধানীতে অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন বিদেশী কূটনীতিকদের। যেসব গ্রাম এখনও নিরাপদে আছে তা দেখতে ওইসব কূটনীতিকদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি। কিন্তু সুচির এ বক্তব্য প্রত্যখ্যান করেছেন বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গা শরণার্থী আবদুল হাফিজ। তিনি বলেছেন, এক সময় তিনি সেনাবাহিনীর চেয়ে সুচির ওপর বেশি আস্থা রাখতেন। এখন তিনি সুচিকে ‘মিথ্যাবাদী’ আখ্যায়িত করছেন। বলছেন, আগেকার যেকোন সময়ের চেয়ে রোহিঙ্গারা বেশি নির্যাতিত। এ খবর দিয়েছে বার্তা সংস্থা এপি। এতে বলা হয়, রোহিঙ্গারা তাদের নিজেদের গ্রামে আগুন দেয়ার অভিযোগ যখন করা হয় তা শুনে ক্ষুব্ধ আবদুল হাফিজ। তিনি বলেন, যদি তা-ই হয় তাহলে তাদের পুড়িয়ে ধ্বংস করে দেয়া গ্রামগুলো পরিদর্শনের জন্য আন্তর্জাতিক পর্যায়ের সাংবাদিকদের অধিকতর সুযোগ বা অনুমতি দেয়া উচিত সুচির। তিনি আরো বলেন, যদি প্রমাণিত হয় যে রোহিঙ্গারা ভুল, মিথ্যা বলছে তাহলে বিশ্ব যদি আমাদের সবাইকে সমুদ্রে ফেলে মেরে ফেলার সিদ্ধান্ত নেয় আমরা তা মাথা পেতে নেবো।

এ সম্পর্কিত আরও