রবিবার , অক্টোবর ২২ ২০১৭
A huge collection of 3400+ free website templates JAR theme com WP themes and more at the biggest community-driven free web design site
প্রচ্ছদ / খেলাধুলা / অবশেষে তামিম ও সৌম্যকে নিয়েযে সুখবর দিলো ফিজিও থিয়েন চন্দ্রমোহন

অবশেষে তামিম ও সৌম্যকে নিয়েযে সুখবর দিলো ফিজিও থিয়েন চন্দ্রমোহন

প্রকাশিত :


স্পোর্টস ডেস্ক,বিডি টোয়েন্টিফোর টাইমসঃ বাংলাদেশের জন্য বড় ধারনে দুঃসংবাদের কারন হয়ে দাড়ায় তামিম ইকবাল এবং সৌম্য সরকারের ইনজুরি। তবে খুশির খবর হচ্ছে প্রথম টেস্টেইখেলবেন দুইজন। অাজ বেনোনিতে সাংবাদিকদের সাথে অালাপ কালে বাংলাদেশ দলের ফিজিও থিয়েন চন্দ্রমোহন বলেন, “তামিম এবং সৌম্য সুস্থ অাছে। তারা দুইজনই প্রথম টেস্ট ম্যাচের জন্য উপযুক্ত।বেনোনির উইলোমোর পার্ক স্টেডিয়ামে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রিত একাদশের বিপক্ষে ফিল্ডিং করার সময় হাতে ব্যাথা পেয়েছিলেন সৌম্য। যে কারণে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নামতে পারেননি তিনি। সৌম্যর পরিবর্তে ইনিংস ওপেন করেন লিটন দাস। আর তামিমের পরিবর্তে ওপেন করেন ইমরুল কায়েস।বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের প্রধান নির্বাচক ও দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে দলীয় ম্যানেজার মিনহাজুল আবেদিন নান্নু বেনোনি থেকে বাংলাদেশের মিডিয়াকে জানিয়েছেন, ‘হাতে কিছুটা ব্যাথা পেয়েছেন সৌম্যসরকার।

আজ রাতে স্ক্যান করলেই বোঝাযাবে আসলে সমস্যাটা কী!’এর অাগের দিনে প্রস্তুতি ম্যাচের প্রথম দিনেই তামিম ইকবালের চোট দুশ্চিন্তায় ফেলে দিয়েছে বাংলাদেশ দলকে। ডান উরুর পেশিতে টান পড়ায় মাত্র ১৩ বল খেলে মাঠের বাইরে চলে যান টাইগারদের সেরা ওপেনার।এদিকে ১ম প্রস্তুতি ম্যাচ ড্র ঘোষনা করা হয়ছে। প্রস্তুতি ম্যাচে শেষ দিনে ব্যাটিংয়ে নেমে ৩ ওভার পরেই ২ রান করে অাউট লিটন কুমার। শেষ দিনে ব্যাটিংয়ে নেমে ৫৩ বলে দ্রুত ফিফটি তুলে নিলেন ইমরুল কায়েস। অবশ্য পরের বলেই অাউট হয়ে যান তিনি। এর পরে ৩৩ রানে মোমিনুল এবং ২ রানে মুসফিক অাউট হলে ৪ উইকেটহারিয়ে চাপে পড়ে বাংলাদেশ।লাঞ্চ বিরতী শেষে খুবই সাবধানে ব্যাটিং শুরু করেছে দুই ব্যাটসম্যান সাব্বির রহমান এবং মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। তবে ব্যাক্তিগত ১৪ রানে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ বিদায় নিলে বাংলাদেশকে একাই টেনে তুলে সাব্বির রহমান।

দলিয় ২০০রানে সাব্বির ৬৭ রানে অাউট হলে তাসকিনের ১৫ রানের সুবাদে ২৩৫ রানেইনিংস ঘোষনা করে বাংলাদেশ। এর পর অার ব্যাটিংয়ে নামে নি অাফ্রিকা।গতকাল দ্বিতীয় দিন দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রিত একাদশ ৩১৩ রানে ইনিংস ঘোষণা করলেও তাদের ৮ উইকেট তুলে নিয়েছে সফরকারী বোলাররা। স্বাগতিকরা ৭ রানের লিড নিলে বিকালে বিনা উইকেটে ৬ রান তুলেছেন দুই ওপেনার লিটন দাস (২) ও ইমরুল কায়েস (৪)।৬১ রানে সর্বোচ্চ ২ উইকেট নিয়েছেন শফিউল ইসলাম। এছাড়া একটি করে নিয়েছেন মোস্তাফিজুর রহমান, শুভাশীষ রায়, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ ও তাইজুল ইসলাম।বেনোনিতে আগের দিন বিকালে ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা একাদশের একটি উইকেটও তুলে নিয়েছিল তারা। শুক্রবার আক্রমণের সেই ধারাবাহিকতা ধরে রাখে বাংলাদেশ। দ্বিতীয় দিনের খেলায় দ্বিতীয় সেশনের শুরু পর্যন্ত আরও ৪ উইকেট তুলে নেয় সফরকারীরা, যার সবগুলোই পান পেসাররা।১ উইকেটে ২১ রানে সকালে খেলতে নামে দক্ষিণ আফ্রিকার আমন্ত্রিত একাদশ।

দিনের ষষ্ঠ ওভারে শুভাশীষ রায়ের এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়েন ওপেনার ইয়াসিন ভাল্লি (১০)।২৫ রানে দ্বিতীয় উইকেট হারানো দলটিআরও দুজন ব্যাটসম্যানকে হারায় খুব দ্রুত। দলীয় ৩৬ রানে লেস ডু প্লয়কে (৪) লিটন দাসের ক্যাচ বানান শফিউল ইসলাম।হেইনরিক ক্লাসেন বেশিক্ষণ ক্রিজে থাকতে পারেননি। ব্যক্তিগত ১৬ রানে মোস্তাফিজুর রহমানের শিকার হন তিনি। মুমিনুল নেন এ উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যানের ক্যাচ।৮৯ রানে ৪ উইকেট হারালেও একপ্রান্তআগলে রাখা জুবায়ের হামজার গুরুত্বপূর্ণ উইকেট বাংলাদেশ তুলে নেয় দ্বিতীয় সেশনের শুরুতে। তিন নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ১০১ বলে ১০ চারে ৬০ রানে থামেন তিনি।তাসকিন আহমেদ তাকে ইমরুল কায়েসের ক্যাচ বানান। এরপর ফের প্রতিরোধে নেমে পড়েন আরেক ব্যাটসম্যান ব্রিটজকে। ধীরে ধীরে দলকে এগিয়ে নিতে থাকেন। সঙ্গে ছিলেন ক্রাইস্টেনসেন। সেই প্রতিরোধের দেয়ালটা আর বড় করতে দেননি স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজ।ব্যক্তিগত ৪৪ রানে তাকে এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলেন তিনি। এরপর লেজের দিকে আরও জুটি গড়ে স্বাগতিকরা।

যদিও বাংলাদেশের বোলিং তোপে বেশিক্ষণ স্থায়ী হতে পারেনি।ক্রাইস্টেনসেন হাফসেঞ্চুরির পরই শফিউলের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েফেরেন। এরপর প্রোটোরিয়াস ও ভন বার্গ মিলে দলকে নিয়ে ৩০৭-এ।প্রিটোরিয়াসকে ৪২ রানে তাইজুল বোল্ড করলে বেশিক্ষণ আর ব্যাট করেনি স্বাগতিকরা। ৩১৩ রানে গিয়ে ইনিংস ঘোষণা করে তারা। ভন বার্গ অপরাজিত থাকেন ৬২ রানে। তার সঙ্গে ৫ রানে ক্রিজে ছিলেন বোকাকো।৭ রানের লিড মাথায় নিয়ে গতকাল দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নামে বাংলাদেশ। তামিম না থাকায় কায়েসের সাথে ওপেনিংয়ে লিটন কুমার। গতকাল দিন শেষে বিনা উইকেটে ৬ রান সংগ্রহ করে বাংলাদেশ।
প্রস্তুতি ম্যাচের জন্য দক্ষিণ অাফ্রিকার দল : এডেন মার্কাম (অধিনায়ক), টলাডি বোকাকো, ওকুহলে চেলে, ম্যাথু ক্রিশ্চেনসেন, মাইকেলকোহেন, আইজাক ডিকগেল, জুবায়ের হামজা, হেনরিচ ক্লাসেন, মিগেল প্রিটোরিয়াস, ইয়াসীন ভালি, শন ভন বার্গ, লুইণ্ডিসোয়া জুমা।
প্রস্তুতি ম্যাচের আজকের বাংলাদেশের একাদশঃ তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, মুমিনুল হক, মুশফিকুর রহিম (অধিনায়ক), মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, সাব্বির রহমান, লিটন কুমার দাস (উইকেটরক্ষক), মেহেদী হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ ও মুস্তাফিজুররহমান।

এ সম্পর্কিত আরও

Check Also

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে মাশরাফির হাফসেঞ্চুরি

স্পোর্টস ডেস্ক: অধিনায়ক হিসেবে হাফ সেঞ্চুরির সামনে দাঁড়িয়ে মাশরাফি। বাংলাদেশের তৃতীয় অধিনায়ক হিসেবে ওয়ানডে ক্রিকেটে …