Mountain View

ব্রেকিং নিউজঃবিসিবি’র সকল কার্যক্রম বন্ধে হাইকোর্টে রিট

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৭ at ১২:০০ পূর্বাহ্ণ

বাংলাদেশের ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) এজিএম’সহ সব ধরণের কাজে নিষেধাজ্ঞা চেয়ে হাইকোর্টে রিট করেছেন বিসিবির সাবেক পরিচালক স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন।

রোববার সকালে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় তিনি এ রিট দায়ের করেন। তিনি দাবি করেছেন, বিসিবির সংশোধিত গঠনতন্ত্র সুপ্রিম কোর্ট থেকে অবৈধ হওয়ায় বর্তমান কমিটি এজিএম করার বৈধতা হারিয়েছে।

এদিকে, অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম, রিট আবেদনকারী মোবাশ্বের হোসেনের কথার সাথে দ্বিমত পোষণ করে জানিয়েছেন, ক্রিকেটের সুনাম রক্ষায় তিনি বিসিবি-এনএসসির পক্ষে আইনি লড়াই চালাবেন। গত পাঁচ বছর ধরে ২০১২ সালে সংশোধিত বিসিবির গঠনতন্ত্রের বৈধতা নিয়ে আইনি লড়াই চলছে।আপিল বিভাগ সবশেষ সংশোধিত গঠনতন্ত্রটি অবৈধ ঘোষণা করে রায় দিলেও থামেনি আইনি বিতর্ক। তারই ধারাবাহিকতায় এই বিষয়টি আবারো দেশের সর্বোচ্চ আদালতে গড়িয়েছে।

রিটকারী মোবাশ্বের হোসেনের দাবি, যেহেতু সংশোধিত গঠনতন্ত্র অনুযায়ী বর্তমান কমিটি গঠিত হয়েছিল, সর্বোচ্চ আদালতের এ রায়ের পর এ পরিচালনা পর্ষদ বৈধতা হারিয়েছে। সুতরাং ২ অক্টোবরে বাৎসরিক সাধারণ সভা করার বর্তমান কমিটির নেই বলে মনে করেন তিনি।এ বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা চেয়েই রোববার এ রিটটি দায়ের করেন বিসিবির সাবেক এই পরিচালক। তাছাড়া, বিসিবির সকল কাজের ওপর নিষেধাজ্ঞা চেয়ে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের হস্তক্ষেপ চাওয়া হয়েছে এই রিটে।

এ রিটের পরপরই উচ্চ আদালতে হাজির হন বিসিবির কর্মকর্তারা। যোগাযোগ করেন রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ আইন কর্মকর্তার সাথে। পরে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম জানান, এ রিটের বিরুদ্ধে বিসিবি ও এনএসসির পক্ষে আইনি লড়াই চালাবেন তিনি।
অ্যাটর্নি জেনারেল বলেন, ‘বহির্বিশ্বে বাংলাদেশ ক্রিকেটের সুনাম ক্ষুণ্ণ হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে এ বিষয়টি উচ্চ আদালতে তুলে ধরা হবে।’ যদিও এর সাথে ভিন্নমত পোষণ করেছেন রিটকারী। সোমবার হাইকোর্টের একটি দ্বৈত বেঞ্চে এ রিট আবেদনের শুনানির কথা রয়েছে।

এ সম্পর্কিত আরও