Mountain View

অভিষেক ম্যাচেই যাদু, কে এই বিষ্ময় যুবক!

প্রকাশিতঃ অক্টোবর ১৯, ২০১৭ at ৮:০১ অপরাহ্ণ

জাতীয় দলে অভিষেক ম্যাচেই যাদু দেখালেন ২২ বছরের যুবক। জাতীয় দলে খেলার প্রথম ম্যাচেই শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সেঞ্চুরি করে দলকে জিতিয়ে আনলেন তিনি। তাকে নিয়ে ক্রিকেট অঙ্গনে চলছে কানাঘুষা। কে এই যুবক? তাকে নিয়ে ক্রিকেট ভক্তদের রহস্যের শেষ নেই। মিডিয়া অঙ্গনে তাকে নিয়ে চলছে আলোচনা।

দুর্দান্ত সেঞ্চুরি করেই তিনি তার অভিষেক মুর্হূতটিকে স্মরণীয় করে রাখলেন। তার নাম ইমাম-উল-হক। তবে তার আরেকটি পরিচয় আছে, তিনি হলেন পাকিস্তানের আরেক কিংবদন্তি ইনজামাম উল হকের ভাতিজা। চাচার মতোই তিনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট দাপিয়ে বেড়াবেন,- এমন প্রতিশ্রুতি দিয়েই তার আন্তর্জাতিক মঞ্চে আবির্ভাব।

চাচা ইনজামামের কারণেই নাকি দলে সুযোগ পেয়েছেন ইমাম এ নিয়ে কানাঘুষা কম হয়নি। তবে চাচা ইনজামাম উল হকের মান রাখলেন ভাতিজা হাসান ইমাম। ১৯৯৫ সালে পাকিস্তানের হয়ে অভিষেক ওয়ানডে ম্যাচে সেঞ্চুরি করেছিল সেলিম ইলাহি। ২২ বছর পরে দ্বিতীয় পাকিস্তানি হিসাবে সেই রের্কড গড়লেন হাসাম ইমাম।

এখন প্রশ্ন হলো হাসান ইমাম অভিষেকে সেঞ্চুরি করে সেলিম ইলাহির পাশে বসলেন নাকি তাকে ছাড়িয়ে গেলেন? ছাড়িয়ে গেছেন এই দাবি করা যায় কারণ অভিষেকে সেঞ্চুরি করে সেই ম্যাচেই সিরিজ নিশ্চিত করেছেন এমন ক্রিকেটার খুঁজে পাওয়া খুবই কঠিন। কারণ এ পর্যন্ত ক্রিকেট ইতিহাসে মাত্র ১৩ জন অভিষেক ম্যাচে সেঞ্চুরি করার রের্কড গড়তে পেরেছে। তাদের মধ্যে অভিষেক ম্যাচে সেঞ্চুরি ও সিরিজি জয়ের প্রশ্ন টানলে সংখ্যাটা বেশি হবে না। তবে পরের বলেই পুল করতে গিয়ে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দেন হাসান ইমাম।

পাকিস্তানের বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাট করতে নেমেই শুরুটা খারাপ ছিল লঙ্কানদের। বরং একপর্যায়ে ২ উইকেটেই ১১২ রান তুলে ফেলেছিল উপুল থারাঙ্গার দল। থারাঙ্গা নিজেই করে ৬১ রান। শ্রীলঙ্কান ইনিংসে এটাই ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রান।

২০৯ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে ৭৮ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েন হাসান ইমাম ও ফখর জামান। ব্যক্তিগত ২৯ রানে সাজঘরে ফেরেন ফখর জামান। দ্বিতীয় উইকেটে বাবর আজমের সঙ্গে ৬৬ রানের জুটির সঙ্গে অভিষেক ম্যাচেই সেঞ্চুরি তুলে নেয় হাসান ইমাম। অভিষেকে মাত্র দ্বিতীয় পাকিস্তানি হিসেবে সেঞ্চুরি করেছেন বাঁহাতি ইমাম।

১৯৯৫ সালের ১২ ডিসেম্বর জন্ম নেয়া ইমাম খেলেন লাহোর লায়ন্সের হয়ে। আন্তর্জাতিক ম্যাচে বুধবারই প্রথম অংশ নেয়া। আর তাতে তিনি ম্যান অব দি ম্যাচ। ১২৫ বলে ঠিক ১০০ করার পথে তিনি হাঁকিয়েছেন ৫টি চার আর দুটি ছক্কা।

এ সম্পর্কিত আরও

Mountain View